প্রচ্ছদ এক্সক্লুসিভ

সেই সুমিকে উদ্ধার করে সেইফ হোমে আনার চেষ্টা চলছে

152
পড়া যাবে: < 1 minute

সৌদি আরবে গিয়ে নি’র্যাতনে’র শি’কার সুমি আক্তারের সঙ্গে যোগাযোগ করেছেন সৌদি রাষ্ট্রদূতের কর্মকর্তারা। সুমিকে উদ্ধার করে সেইফ হোমে আনার চেষ্টাও চলছে। পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলমের সহকারী একান্ত সচিব (এপিএস) সিরাজুল ইসলাম সংবাদ মাধ্যকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

সম্প্রতি ফেসবুকে কান্নাজড়িত কণ্ঠে নিজের সঙ্গে ঘটে যাওয়া পাশবিক নি’র্যাতনে’র কথা বলে সুমি। তাকে দেশে ফিরিয়ে আনার জন্য প্রধানমন্ত্রীর কাছে অনুরোধ জানান। পরে ভিডিওটি ভাইরাল হয়।

এই ভিডিওর ভিত্তিতে সুমিকে দেশে ফেরার উদ্দ্যেগ নিয়েছে পররাষ্ট্র মন্ত্রনালয়। সৌদি আরবে নিযুক্ত রাষ্ট্রদূতের কার্যালয় থেকে এর মধ্যেই সুমির সঙ্গে যোগাযোগ করেছে।

আরও পড়ুন:  বিদেশের মসজিদে অর্থায়ন বন্ধ করতে যাচ্ছে সৌদি আরব

এ বিষয় পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রীর একান্ত সচিব বলেন, সুমির সঙ্গে কর্মকর্তাদের কথোপকথন হয়েছে। তাকে এখন উদ্ধারের চেষ্টা চলছে। উদ্ধার করে দূতাবাসের সেইফ হোমে তাকে নিয়ে আসা হবে। আর বৈধ কাগজপত্র থাকলে সরকারি খরচেই তাকে দেশে ফিরিয়ে আনা হবে।

সুমি আক্তার পঞ্চগড় জেলার বোদা সদর থানার রফিকুল ইসলামের মেয়ে। দুই বছর আগে আশুলিয়ার চারাবাগের নুরুল ইসলামের সঙ্গে তার বিয়ে হয়। চলতি বছর ৩০ মে ভালো চাকরির আশায় সুমি ‘রূপসী বাংলা ওভারসিজ’র মাধ্যমে সৌদি আরব যান। তবে দালালেরা তাকে বিক্রি করে দেওয়ার বিষয়টি সেখানে যাওয়ার পর সুমি বুঝতে পারেন। সেখানের পৌঁছানোর কিছুদিন তার উপর শারীরিক ও মানষিক নি’র্যাত’ন শুরু হয়। যা তিনি প্রায়ই স্বজনদের বলতেন।

আরও পড়ুন:  ইয়েমেনে ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালালো সৌদি আরব

চুরি করে টয়লেট থেকে কথা বলছি আমাকে বাঁচাও, সৌদিতে বাংলাদেশি নারীর বাঁচার আকুতি

video

বাংলা ম্যাগাজিন /এসপি

  • 401
    Shares