প্রচ্ছদ বাংলাদেশ শিক্ষাঙ্গন

পরিবহন শ্রমিকরা কেন সাধারণ মানুষের মুখে মবিল মেখে দেবে?

48
পড়া যাবে: < 1 minute

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদের (ডাকসু) ভিপি নুরুল হক নুর বলেছেন, আন্দোলন মানুষের গণতান্ত্রিক অধিকার। আমরা ছাত্ররা যখন নিরাপদ সড়ক আন্দোলন করেছি, আমরা তো কোনো গাড়ির গ্লাস ভে’ঙে দিইনি। কারো মুখে মবিল, কালি মেখে দিইনি। তাহলে পরিবহন শ্রমিকরা কেন সাধারণ মানুষের মুখে মবিল মেখে দেবে? তাদের স্বার্থে আ’ঘাত লাগলে তারা আন্দোলন করতে পারে কিন্তু সাধারণ মানুষের মুখে কালি মেখে দেবে এটা কেমন?

বৃহস্পতিবার দুপুরে ডাকসুর আয়োজনে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের বাসে হামলাকারীদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবিতে এক মানববন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশে এসব কথা বলেন তিনি। তিনি বলেন, নতুন পরিবহন আইনের প্রতিবাদে পরিবহন শ্রমিকদের ধর্মঘটে উসকানি রয়েছে। তাদের আন্দোলন নিঃসন্দেহে উসকানিমূলক। আপনারা জানেন যে, এই পরিবহন সেক্টরকে কারা উসকে দেয়। অনেকে নিজেদের স্বার্থ হাসিলের জন্য, সরকারকে একটা ম্যাসেজ দেয়ার জন্য এই শ্রমিকদের রাস্তায় নামায়, সরকার যেন তাদের স্বার্থ পূরণ করে।

আরও পড়ুন:  আমি এখন এমপির বাড়িতে দাওয়াত খাই, নিউজ করলে আমি তোমারে দেইখা নিমু

ভিপি নুর বলেন, রাস্তায় যে যানবাহন চলে সেগুলোর ৬০ ভাগ ফিটনেসবিহীন এবং ৪০ ভাগ লাইসেন্সবিহীন। সংক্ষিপ্ত বক্তব্য শেষে বিশ্ববিদ্যালয়ের গুরুত্বপূর্ণ বিভিন্ন ফটক প্রদক্ষিণ করে তারা ভিসি বরাবর তারা একটি স্মারকলিপি দেন। এ সময় উপস্থিত ছিলেন ডাকসুর ছাত্রকল্যাণ ও পরিবহন বিষয়ক সম্পাদক শামস ই নোমান, ডাকসু সদস্য তিলোত্তমা শিকদার প্রমুখ।

উল্লেখ্য, বুধবার পরিবহন শ্রমিকদের অঘোষিত ধর্মঘটে রাজধানীর সাইনবোর্ড এলাকা ও টঙ্গীতে ঢাবির দুটি বাসের গ্লাস ভা’ঙচু’র করা হয়। বাসে থাকা শিক্ষার্থীদের সঙ্গে আ’পত্তিকর আচরণ করে শ্রমিকরা।

বাংলা ম্যাগাজিন /এসপি

  • 20
    Shares