প্রচ্ছদ রাজনীতি আওয়ামী লীগ

সৈয়দ আশরাফকে ভুলে গেছে আওয়ামী লীগ!

159
পড়া যাবে: < 1 minute

শুক্রবার রাজধানীর কৃষিবিদ ইনস্টিটিউট বাংলাদেশ (কেআইবি) মিলনায়তনে মৎস্যজীবী লীগের জাতীয় সম্মেলনের দ্বিতীয় অধিবেশন অনুষ্ঠিত হয়েছে। সম্মেলনে আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক ও প্রায়াত সৈয়দ আশরাফুল ইসলামের নাম না থাকায় তীব্র ক্ষোভ প্রকাশ করেছে মৎসজীবী লীগের নেতারা।

শুক্রবার সকাল আওয়ামী মৎসজীবী লীগের আনুষ্ঠানিক প্রথম সম্মেলনে প্রতিষ্ঠার পর থেকে আওয়ামী লীগের বিভিন্ন নেতাদের নাম নেয়া হলেও বিদায়ী কমিটির কোন নেতার মুখে শোনা যায়নি। এমনকি শোনা যায়নি মহান মুক্তিযোদ্ধা ও রাজনীতিবিদ সৈয়দ আশরাফুল ইসলামের নাম। এমনকি বর্ষীয়ান এই রাজনীতিবিদের নাম বাদ পরে সম্মেলনের শোক প্রস্তাব থেকেও।

আরও পড়ুন:  কোনো চাপে নতিস্বীকার করবে না আওয়ামী লীগ

শোক প্রস্তাব শেষ হবার পর পরই কিশোরগঞ্জ এবং ময়মনসিংহ থেকে আসা মৎসজীবী লীগের নেতারা এমন ঘটনার তীব্র প্রতিবাদ শুরু করে। কিছুক্ষণের মাঝেই সারাদেশ থেকে আসা নেতাকর্মীরা এই প্রতিবাদে যোগ দেয়। শেষ পর্যন্ত প্রতিবাদের মুখে নেতাকর্মীদের সামনে প্রকাশ্যে ক্ষমা চান সম্মেলন আয়োজক কমিটি। শোক প্রস্তাবে অন্তর্ভুক্ত করা হয় সৈয়দ আশরাফুল ইসলামের নাম।

সৈয়দ আশরাফ একাদশ জাতীয় নির্বাচনে কিশোরগঞ্জ-১ (কিশোরগঞ্জ সদর ও হোসেনপুর উপজেলা) আসনে নৌকা প্রতীক নিয়ে জয়ী হন। তবে ফুসফুসের ক্যান্সারে আক্রান্ত হয়ে দীর্ঘদিন ধরে থাইল্যান্ডের বামরুনগ্রাদ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ছিলেন। এই অসুস্থতা নিয়েই এবছরের ৩ জানুয়ারি না ফেরার দেশে চলে যান তিনি। তার পিতা বাংলাদেশের মুজিবনগর অস্থায়ী সরকারের ভারপ্রাপ্ত রাষ্ট্রপতি সৈয়দ নজরুল ইসলাম।

আরও পড়ুন:  'এটা তো আমাদের চেষ্টা করতে হবে মিটমাট করার জন্য'

উল্লেখ্য, আওয়ামী মৎস্যজীবী লীগের প্রথম আনুষ্ঠানিক সম্মেলন শেষে সভাপতি-সাধারণ সম্পাদকসহ মোট ১১ সদস্যের কমিটি ঘোষণা করেছেন আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের। সভাপতি নির্বাচিত হয়েছেন মৎস্যজীবী লীগের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি মোহাম্মদ সাইদুর রহমান, সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত হয়েছেন মোহাম্মদ আজগর নস্কর এবং কার্যকরী সভাপতি নির্বাচিত হয়েছেন সাইফুল আলম মানিক।

বাংলা ম্যাগাজিন /এসপি

  • 770
    Shares