প্রচ্ছদ বিশ্ব সংবাদ

বিজেপি ছাড়লেন ভারতের ৮০ মুসলিম নেতা

148
পড়া যাবে: < 1 minute

নাগরিকত্ব আইনকে ‘বিভাজনমূলক’ আখ্যা দিয়ে বিজেপি ছাড়লেন ভারতের মধ‍্যপ্রদেশের ৮০ মুসলিম নেতা। তারা সিএএ নিয়ে বিজেপি সভাপতি জে পি নাড্ডাকে একটি চিঠি লিখেছেন। এবং সেই চিঠিতে সিএএ কে বিভাজনমূলক বলে আখ্যায়িত করেছেন। এরপর তারা এই আইনের বি’রোধিতা জানিয়ে বিজেপি থেকে পদত্যাগ করেছেন। পদত্যাগকারী নেতাদের একজন হলেন রাজিক কুরেশি ফারশিওয়ালা। তিনি জানান, তারা দলের নবনির্বাচিত সভাপতি জে পি নাড্ডা কাছে সিএএ-কে বিভেদ সৃষ্টি’কারী বলে লিখিতভাবে জানিয়ে পদত্যাগ করেছেন। এই বিজেপি নেতা জা’নান, পদত্যাগকারীদের মধ্যে বিজেপির সংখ্যালঘু সেলের অনেকেই আছেন।

আরও পড়ুন:  ৬০০ মাদ্রাসাকে বন্ধ করার চক্রান্ত করছে বিজেপি সরকার

গত বছরের ডি’সেম্বরে সিএএ পাস হওয়ার পর তাদের জন্য ধর্মীয় আচার-অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণ করা কঠিন হয়ে পড়েছে। তিনি জানান, মানুষ আমাদের অভিশাপ দেয় এবং আমরা আর কতদিন এমন বিভেদ সৃষ্টি’কারী আইনের বিষয়ে নীরব থাকব জানতে চায়। নির্যাতিত শরণার্থীরা যে ধর্মেরই হোক ভারতীয় নাগরিকত্ব পাওয়া উচিত। মুসলিম নেতারা তাদের চিঠিতে উল্লেখ করেন, ভা’রতীয় সংবিধানের আর্টিকেল ফোরটিন অনুসারে সব নাগরিকের সমান অধিকার আছে। কিন্তু বিজেপি নে’তৃত্বাধীন কেন্দ্রীয় সরকার ধর্মের ভিত্তিতে সিএএ প্রয়োগ করছে।

এই চিঠিতে আরও উল্লেখ করা হয়, এই আইন দেশকে বিভক্ত করবে এবং এটি সং’বিধানের মৌলিক নীতির বিরোধী। ফারশিওয়ালা বলেন, শুধু ধর্মের ভিত্তিতে একজনকে অনুপ্রবেশকারী বা সন্ত্রাসী বলা যায় না। উল্লেখ্য, বি’তর্কিত এই নাগরিকত্ব আইনের বিরুদ্ধে দেশজুড়ে বিক্ষোভ অব‍্যাহত। দিন যত যাচ্ছে আন্দোলন ততই আরও জোরালো হচ্ছে। আন্দোলনকারীদের দাবি, এই আইন ধর্মের ভিত্তিতে এবং অসাংবিধানিক। যদিও মোদি সরকারের দাবি, পাশা’পাশি তিন দেশ থেকে আগত অমুসলিম সংখ‍্যালঘুদের নাগরিকত্ব দেওয়ার জন্য এই আইন।

আরও পড়ুন:  দিল্লিতে বিক্ষোভ সহিংসতায় ৪২ জনের মৃত্যু

বাংলা ম্যাগাজিন /এসপি

  • 740
    Shares