প্রচ্ছদ বাংলাদেশ জাতীয়

সিটি নির্বাচনকে বানচাল করতেই সুপরিকল্পিতভাবে হামলা চালিয়েছে বিএনপি

44
পড়া যাবে: 2 মিনিটে

সিটি নির্বাচনকে বানচাল করতেই রাজধানীর গোপীবাগে বিএনপি সুপরিকল্পিতভাবে আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীদের উ’পর হামলা চালিয়েছে। এমন দাবি করেছেন আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদ সদস্য ও ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনে (ডিএসসিসি) দলের নির্বাচন পরিচালনা কমিটির প্রধান সমন্বয়ক আমির হোসেন আমু। আমির হোসেন আমু বলেন, আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থী ফজলে নূর তাপসের পক্ষে নির্বাচনি প্রচারণায় অংশগ্রহণের সময় যুবলীগের নেতাকর্মীদের ওপর বি’এনপির মেয়র প্রার্থীর নে’তৃত্বে একটি মিছিল এসে এ হামলা করে। আপনারা নিশ্চয়ই লক্ষ করেছেন, আইনশৃঙ্খলা কর্তৃপক্ষ বলেছে ওখানে বিএনপির নির্বাচনি প্র’চারণার শিডিউল প্রোগ্রাম ছিল না। ওখানে তারা নির্বাচনি প্রচারণায় যাওয়ার পরিপ্রেক্ষিতে এমন ঘটনা ঘটেছে, এটা সঠিক নয়। আইনশৃঙ্খলা বাহিনী তাদের বক্তব্যে প’রিষ্কারভাবে বলেছে।

এটা তাদের সুপরিকল্পিত হামলা। এটা আগামী দিনে নির্বাচন বানচালের একটি ই’ঙ্গিত। তিনি বলেন, বারবার এসব কথা তারা (বিএনপি) বলে আসছে, আজকে আবার তারাই শুরু করলো। কয়েক’দিন আগেও কয়েকটা মারপিটের ঘটনা ঘটেছে। তখন আমরা ভেবেছিলাম স্থানীয়ভাবে এটা হতে পারে। আজকের ঘটনায় সেখানে কয়েক রাউন্ড গুলি ছোড়া হয়েছে। সেখানে আমাদের কর্মীরা আহত হয়েছেন। কয়েকজন আশঙ্কা’জনক অবস্থায় ঢাকা মেডিক্যালে ভর্তি আছেন। বিএনপিকে উদ্দেশ করে এই নেতা বলেন, আমরা মনে করি সারা দেশের মানুষের আকাঙ্ক্ষা বাস্তবায়নের জন্য তাদের শুভবুদ্ধির উদয় হোক। তারা নির্বাচনে সক্রিয়ভাবে অংশ’গ্রহণ করুক। নির্বাচন বানচাল করার জন্য নয়, নির্বাচনকে সুষ্ঠু করার জন্য অংশগ্রহণ করুক, সেটা আমরা চাই।

আরও পড়ুন:  বিশ্বমানের বাসযোগ্য অত্যাধুনিক ঢাকা গড়ার প্রতিশ্রুতি দিলেন ইশরাক

নির্বাচন কমিশনের কাছে দাবি জানিয়ে তিনি বলেন, এই ঘটনায় যারা সত্যিকারের দায়ী তাদের ব্যাপারে নির্বাচন কমিশনের যে বিধিবিধান আছে সেই মোতাবেক ব্যবস্থা গ্রহণ করুক। এটাই আমাদের দাবি। আইন’শৃঙ্খলা বাহিনীর উদ্দেশে তিনি বলেন, আইনশৃঙ্খলা যেন ঠিক থাকে, সঠিকভাবে যাতে সবাই ভোটাধিকার প্রয়োগ করতে পারেন তার জন্য আইনশৃঙ্খলা বাহিনীকে আরও সতর্ক হতে হবে এবং কার্যকর পদক্ষেপ গ্রহণ করতে হবে। সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জ’বাবে তিনি বলেন, আমাদের পক্ষ থেকে থানায় মামলা করা হয়েছে। নির্বাচন কমিশনের কাছে এ ব্যাপারে প্রতিবাদ দেওয়া হবে, নির্বাচন কমিশন যেটা ভালো মনে করে সেটা করে। সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগের সভাপতি’মণ্ডলীর সদস্য জাহাঙ্গীর কবির নানক, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দীন নাছিম, সাংগঠনিক সম্পাদক বিএম মোজাম্মেল হক প্রমুখ।

আরও পড়ুন:  নির্বাচনের শেষ সপ্তাহের প্রচারণায় ব্যস্ত প্রার্থীরা

বাংলা ম্যাগাজিন /এসপি

  • 121
    Shares