প্রচ্ছদ বাংলাদেশ জাতীয়

আজ পদ্মা সেতুতে বসানো হলো ২৩তম স্প্যান

61
পড়া যাবে: < 1 minute

শরীয়ত’পুরের জারিরা প্রান্তে রোববার পদ্মা সেতুর ২৩তম স্প্যান বসানো হয়েছে। দুপুর ৩ টার দিকে সেতুর ৩১ ও ৩২ নম্বর পিলারের উপর ৬-এ নামে এ স্প্যানটি বসানো হয়। এরই মধ্য সেতুর ৩ হাজার ৪৫০ মিটার দৃশ্য’মান হয়েছে। এর আগে ২৩ জানুয়ারী সেতুর ২২তম স্প্যান বসানো হয়। রবিবার (২ ফেব্রুয়ারি)সকাল ৯ টার দিকে মুন্সীগঞ্জের মাওয়া কন্সট্রাক্টশন ইয়ার্ড থেকে ১৫০ মিটার দৈর্ঘ্য তিন হাজার ১৪০ টন ওজনের স্প্যান নিয়ে সেতুর নির্ধারিত পিলারের উ’দ্দেশ্যে রওনা দেয় ভাস’মান ক্রেন তিয়ান-ই। পদ্মা সেতুর সহকারী প্রকৌশলী হুমায়ুন কবীর জানান, ভাসমান ক্রেন তিয়ান-ই সকাল ১০টার দিকে ৬-এ স্প্যান নিয়ে নির্ধারিত পিলারের কাছে পৌছায়।

আরও পড়ুন:  *আজ বসছে পদ্মা সেতুর ২৬তম স্প্যান, দৃশ্যমান হবে সেতুর ৩ হাজার ৯০০ মিটার*

এরপর সংশ্লিষ্ট প্রকৌশলীরা স্প্যান বসানোর কর্মযজ্ঞ শুরু করে। কয়েক ঘন্টার প্র’চেষ্টা চালিয়ে  ৩ টার দিকে স্প্যানটি বসাতে সক্ষম হন সংশ্লিষ্ট প্রকৌশলীরা। প্রকৌশলী সূত্রে জানাযায়, পদ্মা সেতুর মোট ৪১টি স্প্যা’নের মধ্যে চীন থেকে মাওয়ায় এসেছে ৩৫টি স্প্যান। বাকী স্প্যান গুলো মার্চের মধ্যেই দেশে চলে আসবে। সেতুর ৪১টি স্প্যানের মধ্যে ২৩টি স্প্যান স্থায়ী’ভাবে স্থাপন করা হয়েছে যার দৈর্ঘ্য ৩ হাজার ৪৫০ মিটার। এ সিডিউল মেনে স্প্যান বসাতে পারলে আগামী বছরের জুলাই নাগাদ ৪১টি স্প্যান ব’সানো শেষ হবে।

২০১৪ সালের ডিসেম্বরে পদ্মা’সেতুর নির্মাণ কাজ শুরু করা হয়েছে। মূল সেতু নির্মাণের জন্য কাজ করছে চীনের ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান চায়না মেজর ব্রিজ ইঞ্জিনিয়ারিং কোম্পানি ও নদী শাসনের কাজ করছে দেশ’টির আরেকটি প্রতিষ্ঠান সিনো হাইড্রো করপোরেশন। ৬ দশমিক ১৫ কিলো’মিটার দীর্ঘ সেতুর মূল আকৃতি হবে দোতলা। কংক্রিট ও স্টিল দিয়ে নির্মিত হচ্ছে এ সেতুর কাঠামো। পদ্মা সেতুর নির্মাণ কাজ স’ম্পূর্ণ হওয়ার পর আগামী ২০২১ সালেই খুলে দেয়া হবে।

আরও পড়ুন:  *আজ বসছে পদ্মা সেতুর ২৬তম স্প্যান, দৃশ্যমান হবে সেতুর ৩ হাজার ৯০০ মিটার*

বাংলা ম্যাগাজিন /এসপি

সাম্প্রতিক খবর আপনার মুঠোফোনে পেতে এখনি প্লে-স্টোর থেকে Bangla Magazine সার্চ করে ডাউনলোড করুন বাংলাদেশের নাম্বার ওয়ান নিউজ ম্যাগাজিন অ্যাপটি। অথবা ডাউনলোড করতে ক্লিক করুন এখানে। ভালো লাগলে অবশ্যই রেটিং দিয়ে উৎসাহী করুন।

  • 61
    Shares