প্রচ্ছদ বাংলাদেশ জাতীয়

পৃথিবীর সর্বশ্রেষ্ঠ ধর্ম হলো ইসলাম ধর্ম

2433
পড়া যাবে: 2 মিনিটে

প্রধানমন্ত্রী ও সং’সদ নেতা শেখ হাসিনা বলেছেন, শিক্ষার্থীদের মানবিক মূল্যবোধ’সম্পন্ন মানুষ হিসেবে গড়ে তুলতে শিক্ষক’দের বিভিন্ন প্রশিক্ষণের মাধ্যমে ইসলাম ধর্মের অপ’ব্যাখ্যা ও জঙ্গি’বাদ সম্পর্কে সচেতন করা হচ্ছে। তিনি বলেন, ইসলাম ধর্ম শান্তির ধর্ম। কোরআন ও হাদিসের আলোকে তা তরুণ শিক্ষার্থী’দের বোঝাতে দেশের আলেম সমাজ সক্রিয় সহ’যোগিতা করছেন। বুধবার (১২ ফেব্রুয়ারি) জাতীয় সং’সদের অধিবেশনে বাংলাদেশ তরিকত ফেডারেশনের চেয়ারম্যান ও চট্ট’গ্রাম-২ আসনের সং’সদ সদস্য সৈয়দ নজিবুল বশর মাইজ’ভাণ্ডারীর সম্পূরক প্রশ্নের উত্তরে প্রধান’মন্ত্রী একথা বলেন।

প্রধান’মন্ত্রী বলেন, ধর্মের মধ্যে ভাগ করা, কে ভালো, কে ভালো না আমি জানি না। আ’মাদের নবী করিমও (সা.) একথা বলেননি। অথবা ই’সলাম ধর্মও একথা বলেনি। আমি মনে করি আমাদের ইস’লাম ধর্মে যারা বি’শ্বাসী তারা যদি ইসলাম ধর্ম’কেই বিশ্বাস করে এবং নবী করিম (সা.) এর বাণী সেটাও যদি ধারণ করে, সেটাও যদি মেনে চলে তাহলে তো এই বি’চারের পথে কেউ যেতে পারে না। আমি ভালো মুসল’মান না উনি ভালো মুসল’মান এটা বলার দায়িত্ব তো আল্লাহ কাউকে দেননি। এই বিচার করার অধি’কারও কাউকে দেননি। আল্লাহ তো বারবার বলেছেন, কুরআনেও বলা আছে শেষ বিচার আল্লাহ রাব্বুল আলা’মিন করবেন।

আরও পড়ুন:  বহুমুখী পদ্মাসেতুর ৮৫ শতাংশ নির্মাণ কাজ সম্পন্ন, দৃশ্যমান সেতুর ৩ কিলোমিটার

সেই ধৈর্যটা থাকবে না কেন। এখানে আমি বলবো যারা সত্যি’কার অর্থে ইসলাম বি’শ্বাস করে তারা প্রত্যেকেই যার যার ধর্ম সেই সেই পা’লন করবে। তিনি বলেন, কারও ধর্মে আঘাত দিয়ে কথা না বলা, মুসল’মান হয়ে মুসলমানকে আঘাত এটা যেন না করে। একই সঙ্গে অন্য ধর্মা’লম্বীদেরও (এটাও ইসলামের শিক্ষা) আ’ঘাত করা যাবে না। আঘাত করা উ’চিত না। সুরা কাফে স্পষ্ট বলা আছে। যার যার ধর্ম তার তার কাছে। যার যার ধর্ম সেই সেই পালন করবে। সেই বিশ্বাস নিয়ে চললে এই দ্বন্দ্বটা থাকে না। প্রধান’মন্ত্রী বলেন, ইসলাম শা’ন্তির ধর্ম, পৃথিবীর সর্ব’শ্রেষ্ঠ ধর্ম হলো ইসলাম ধর্ম।

আরও পড়ুন:  মুজিববর্ষ উদযাপনে এমন কিছু করা যাবে না যেটা বাড়াবাড়ি হয়

সেই ধর্মে আমাদের শা’ন্তির কথা বলা আছে। জীবনযাত্রা, জীবন’মান সবকিছু চমৎকার’ভাবে বলা আছে। সেখানে জঙ্গি’বাদ সমস্যা শুধু বাংলা’দেশে না এটা সারা বিশ্বব্যাপী। ধর্মের নামে জঙ্গি’বাদ সৃষ্টি হয়ে আমাদের এই ধর্ম’টাকে মুষ্টিমেয় লোকের জন্য বিশ্বের কাছে ইসলাম ধর্ম প্রশ্ন’বিদ্ধ হতে থাকে। আমরা সব সময় সে’টাতে আপত্তি জানিয়েছি। ধর্মের নামে যেন জঙ্গি’বাদ সৃষ্টি না হয়। তার জন্য আমরা আলেম ওলামাদের এক করে (আমাদের ছাত্র’ছাত্রী যুব সমাজ যেন সচেতন হয় এবং ইসলাম ধর্মের সত্যি’কার বাণীটা যেন বুঝতে পারে তার জন্য) স’ম্পৃক্ত করেছি। তার কিছু ভালো ফলও আমরা পাচ্ছি।

বাংলা ম্যাগাজিন /এসপি

  • 35.4K
    Shares