প্রচ্ছদ বাংলাদেশ জেলা

দেশত্যাগ করার সময় নরসিংদীর যুব মহিলা লীগ নেত্রীসহ আটক ৪

401
পড়া যাবে: 2 মিনিটে

দেশ’ত্যাগ করার সময় নর’সিংদী জেলা যুব মহিলা লীগের সাধারণ সম্পাদক শামিমা নূর পাপিয়া ও তার স্বামী সুমন চৌধুরী ওরফে মতি সুমন’সহ ৪ জনকে আটক করেছে র‍্যাব-১। তাদের বি’রুদ্ধে বিভিন্ন অ’সামাজিক কার্য’কলাপ চালানো, অ’বৈধ সম্পদ অর্জন ও পাচারের অভি’যোগ রয়েছে। এ অভি’যোগের ভিত্তিতে শনি’বার [২২ ফে’ব্রুয়ারি] দু’পুরে ঢাকা হযরত শাহ’জালাল আন্তর্জাতিক বিমান’বন্দর হয়ে দেশ’ত্যাগের সময় তাদের আ’টক করে র‌্যাব।

এ সময় তাদের কাছ থেকে ৭ টি পাস’পোর্ট, নগদ ২ লাখ ১২ হাজার ২৭০ টাকা, ২৫ হাজার ৬০০ জাল টাকা, ১১ হাজার ৯১ ইউএস ডলার’সহ বি’ভিন্ন দেশের মুদ্রা জব্দ করা হয়। র‍্যাব আরো জা’নায়, আ’টক পপিয়ার তেজ’গাঁও এফডিসি গেট সং’লগ্ন এলাকায় অংশী’দারিত্বের ভিত্তিতে একটি গাড়ির শো রুম এবং নর’সিংদীতে একটি গাড়ি সার্ভিসিং সে’ন্টার রয়েছে। এ’সব ব্যব’সার আড়ালে তিনি অ’বৈধ অস্ত্র, মাদক ব্যবসা, চাঁদা’বাজিসহ বিভিন্ন অ’নৈতিক কর্ম’কাণ্ডে জড়িত ছিলেন।

আরও পড়ুন:  পলাশ বিয়াম ল্যাবরেটরি স্কুলে বার্ষিক ক্রীড়া ও পুরস্কার বিতরন অনুষ্ঠিত

পাপিয়া সমাজ সেবার নামে নর’সিংদী এলাকায় অ’সহায় নারী’দের আর্থিক দুর্বল’তার সুযোগ নিয়ে তাদের অ’নৈতিক কাজে লিপ্ত কর’তেন। এজন্য অধি’কাংশ সময় নর’সিংদী ও রাজ’ধানীর বিভিন্ন বিলাস’বহুল হোটেলে অব’স্থান করে অ’নৈতিক কাজে নারী সর’বরাহ করে আস’ছিলেন তিনি। পাপিয়া গত তিন মাসে ১ কোটি ৩০ লাখ টাকা হোটেল বিল পরি’শোধ করেছেন। তার নামে ওই হোটেলের প্রেসিডেন্ট স্যুট সব’সময় বুকড থাকতো। হোটেলে প্রতি’দিন শুধু’মাত্র বারের খরচ’বাবদ প্রায় আড়াই লাখ টাকা পরি’শোধ করতেন।

হোটেল’টিতে তার নিয়’ন্ত্রণে সাতটি মেয়ে ছিলো বলে জানা গেছে। যাদের প্রতি মাসে ৩০ হাজার করে মোট ২ লাখ ১০ হাজার টাকা পরি’শোধ করতেন তিনি। র‍্যাব আরো জানায়, নর’সিংদী এলাকায় চাঁদা’বাজির জন্য পাপিয়ার একটি ক্যাডার বাহিনী রয়েছে। স্বামীর সহ’যোগিতায় অবৈধ অস্ত্র, মাদক ও চাঁদা’বাজির মাধ্যমে স্বল্প সময়ের মধ্যে তিনি নর’সিংদী ও ঢাকায় একা’ধিক বিলাস’বহুল বাড়ি-গাড়ি’সহ বিপুল পরি’মাণ অর্থের মালিক হয়েছেন। এছাড়া তিনি বিভিন্ন ধরনের তদ’বির বাণি’জ্যের সঙ্গেও জড়িত।

আরও পড়ুন:  নরসিংদীতে মহানবীকে নিয়ে কটূক্তির অভিযোগে এক যুবককে গ্রেফতার

তবে এ বিষয়ে এখনো বিস্তা’রিত জানা যায়’নি। র‌্যাব জানায়, আটক মতি পেশায় এক’জন ব্যব’সায়ী। দেশে স্ত্রীর ব্যব’সায় সহ’যোগিতার পাশা’পাশি থাইল্যান্ডে তার বারের ব্যবসা রয়েছে। তিনি তার স্ত্রীর মাধ্যম প্রত্যন্ত অঞ্চলের অ’সহায় নারীদের অ’নৈতিক কাজে ব্যব’হার করতেন। অ’বৈধ অস্ত্র, মাদক ব্যবসা, চাঁদা’বাজিসহ বিভিন্ন অপ’রাধের জন্য নর’সিংদী এলাকায় তার কু-খ্যাতি রয়েছে।

আটক সাব্বির খন্দ’কার পাপিয়ার ব্যক্তি’গত সহকারী এবং আটক তায়্যিবা মতি সুমনের ব্যক্তি’গত সহ’কারী হিসেবে কাজ কর’তেন। পাপিয়া ও মতি সুমনের ব্যক্তি’গত সম্পত্তির হিসাব রক্ষণা’বেক্ষণসহ সব অ’বৈধ ব্যবসায় এবং অর্থ’পাচার ও রাজস্ব ফাঁকি দিতে সহ’যোগিতা করে আস’ছিলেন তারা।

বাংলা ম্যাগাজিন /এসপি

সাম্প্রতিক খবর আপনার মুঠোফোনে পেতে এখনি প্লে-স্টোর থেকে Bangla Magazine সার্চ করে ডাউনলোড করুন বাংলাদেশের নাম্বার ওয়ান নিউজ ম্যাগাজিন অ্যাপটি। অথবা ডাউনলোড করতে ক্লিক করুন এখানে। ভালো লাগলে অবশ্যই রেটিং দিয়ে উৎসাহী করুন।

  • 354
    Shares