প্রচ্ছদ বাংলাদেশ জেলা

সরকারি হাসপাতালে ‘মৃত’ ঘোষিত শিশুর জন্ম বেসরকারি হাসপাতালে

22
সরকারি হাসপাতালে 'মৃত' ঘোষিত শিশুর জন্ম বেসরকারি হাসপাতালে

কুষ্টিয়ার ২৫০ শয্যার হাসপাতালে এক প্রসূতির গর্ভের সন্তানকে মৃত বলে। কিন্তু স্থানীয় বেসরকারি হাসপাতালে গেলে, সেই প্রসূতি জন্ম দেন একটি জীবিত সন্তান। এমন অভিযোগ রোগীর স্বজনদের। কিন্তু সরকারি হাসপাতালের চিকিৎসক বলছেন, মৃত নয়, অস্বাভাবিক সন্তান অপসারণের পরামর্শ দেওয়া হয়েছে মাত্র।

কুষ্টিয়ার খুশি খাতুন এখন আক্ষরিক অর্থেই খুশি। কারণ তার কোলজুড়ে এসেছে এক ছেলে সন্তান।

অথচ এই সন্তান পৃথিবীর আলো দেখার আগেই তাকে অপসারণ করার কথা ভেবেছিলো খুশির পরিবার।

রোগীর স্বজনদের অভিযোগ, বুধবার প্রসব বেদনা নিয়ে জেলার আড়াইশ শয্যার হাসপাতালে ভর্তি হন খুশি খাতুন। শনিবার ভোরে ওয়ার্ডে কর্তব্যরত এক স্টাফ এসে জানান, তার গর্ভের সন্তানটি মৃত।

এমন অবস্থায় খুশির গর্ভপাত করাতে তাকে নেয়া হয় স্থানীয় এক বেসরকারি হাসপাতালে। সেখানেই জীবিত সন্তানের জন্ম দেন তিনি।

আরও পড়ুন:  আমার মেয়েকে পাঁচ মাসের গর্ভবতী করছে মাদ্রসার হুজুর

তবে আড়াইশ শয্যার হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ অস্বীকার করছে আগের ভুলের বিষয়টি।

শেয়ার করুন :

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন

Loading Facebook Comments ...