প্রচ্ছদ বিনোদন

যৌন হয়রানির রগরগে বর্ণনা দিলেন অভিনেত্রী

177
যৌন হয়রানির রগরগে বর্ণনা দিলেন অভিনেত্রী
ছবি : সংগৃহীত

বলিউডে গত কয়েক দিনে একের পর এক অভিনেত্রী খোলাখুলি অভিযোগ করছেন, তারা যৌন হেনস্থার শিকার হয়েছেন। তনুশ্রী দত্ত নামে এক অভিনেত্রী সম্প্রতি খোলাখুলি মিডিয়ায় সাক্ষাৎকার দিয়ে অভিনেতা নানা পাটেকরের বিরুদ্ধে যৌন হয়রানির অভিযোগ আনার পর থেকে তা নিয়ে শুরু হয়ে গেছে তীব্র বিতর্ক।

এরপর বেশ কজন অভিনেত্রী একে একে একই অভিযোগ নিয়ে আসতে শুরু করেছেন। ভারতীয় মিডিয়াতে খবর বেরিয়েছে প্রথম সারির অভিনেত্রী কঙ্গনা রানাওয়াত এক নামকরা পরিচালকের বিরুদ্ধে যৌন হয়রানির অভিযোগ করেছেন। অভিনেত্রী-পরিচালক পূজা ভাট সোচ্চার হয়েছেন।

জানা গেছে, তনুশ্রী দত্ত গতকাল (রোববার) নানা পাটেকরের বিরুদ্ধে পুলিশের কাছে মামলা করেছেন।

অনেকে বলছেন, হলিউডে যেমন প্রযোজক হার্ভে ওয়েনেস্টেইনের বিরুদ্ধে এক অভিনেত্রীর যৌন হেনস্থার অভিযোগকে কেন্দ্র করে ‘মি-টু’ আন্দোলন শুরু হয়েছিল, বলিউডেও এখন তারই সূত্রপাত হচ্ছে।

বলিউডে যৌন হেনস্থা সম্পর্কে তার অভিজ্ঞতা কী?

‘ভিরি ডি ওয়েডিং’ এবং ‘আংরেজি মে ক্যাহতে হ্যায়’ ছবির মুখ্য অভিনেত্রী একাভালি খান্না বিবিসি বাংলাকে বলেন – সবসময়ই এই শিল্পের সাথে সংশ্লিষ্ট মানুষজন জানতো কী হচ্ছে, কিন্তু কথা বলতে চাইত না।

“সবাই জানত, কিন্তু সহজে কেউ সামনে আসতে চাইত না। কেউ বলতে চাইলে তাকে চুপ করিয়ে দেয়া হতো…এসব আমরা হরহাশেমা শুনেছি।”

“আমি ব্যক্তিগত নিজের কিছু দেখিনি, কিন্তু প্রায়ই শুনি। বিশেষ করে নবাগত অভিনেত্রী, নবাগত মডেলরা এর শিকার হন- এসব নতুন কোনো কথা নয়।”

খান্না বলেন, তিনি এমন বেশ কিছু ঘটনা শুনেছেন এবং কয়েকজনকে ব্যক্তিগতভাবে চেনেন যারা হেনস্থা সহ্য না করতে পেরে চলচ্চিত্র জগত থেকেই বিদায় নিয়েছেন। “তারা পরে বলেছেন তারা আর সহ্য করতে পারছিলেন না।”

আরও পড়ুন:  বিয়ের ৪ মাসেই মা হচ্ছেন ‘সোনম কাপুর’!

“আমার এক বন্ধু অভিনেত্রী বলেছিলেন এক ব্যক্তির যন্ত্রণায় তিনি খুব পছন্দের একটি রোল ছেড়ে দিতে বাধ্য হয়েছিলেন।”

“মেয়েরা যখন সেটে বা অন্য কোথাও একসাথে হই, তখন এসব নিয়ে কথা হয়…অনেক অভিনেতা, পরিচালক সম্পর্কে অনেক কিছু শোনা যায়।”

“অন্য পেশাতেও এসব হয়, কিন্তু ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রিতে বেশি হয়, অনেক মানুষ সুবিধা নেয়া চেষ্টা করে।”

নিজের ব্যক্তিগত অভিজ্ঞতা সম্পর্কে বলতে গিয়ে খান্না বলেন, “আপনি অডিশন দিয়ে প্রমাণ করেছেন যে আপনি একটি চরিত্রে অভিনয়ের জন্য যোগ্য, সেটি পেয়ে গেলেন…কিন্তু হঠাৎ মাঝরাতে মোবাইলে মেসেজ এলো বম্বে কবে আসছ? অনেক পার্সোনাল প্রশ্ন।”

কিন্তু ভারতের মতো রক্ষণশীল সমাজে এসবের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ কতটা জোরালো হবে? হলিউডে যেভাবে মি-টু আন্দোলন ব্যাপকভাবে ছড়িয়েছে, তেমনটা কি হবে?

এই প্রশ্নে অভিনেত্রী একাভালি খান্না বিবিসিকে স্বীকার করেন, হলিউডের মতো ব্যাপকতা এবং গতি হয়তো বলিউডে দেখা যাবে না, কিন্তু তিনি পরিবর্তনের আশা দেখছেন।

“আস্তে আস্তে হলেও অনেকে এগিয়ে আসছেন, কথা বলছেন, একজনের অভিযোগকে সমর্থন করছেন, তনুশ্রী দত্তের অভিযোগের প্রমাণ দিতে একজন সহকারী পরিচালক এগিয়ে এসেছেন, সুতরাং পরিস্থিতি বদলাবেই, আমি আশাবাদী।”

খান্না বলেন, সোশ্যাল মিডিয়ার কারণে আগের মতো সবকিছু গোপন থাকছে না, ফলে মানুষজন এখন আচরণ নিয়ে সতর্ক হচ্ছে।

শেয়ার করুন :
  • 21
    Shares

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন

Loading Facebook Comments ...