প্রচ্ছদ জানা অজানা

ভারতীয় ভিসা আবেদন পত্রে সঠিকভাবে ডকুমেন্টস সাজাবেন যেভাবে

0

দেশের বাইরে যারা যান, তাদের অনেকেরই প্রথম পছন্দ থাকে ভারতে ভ্রমণ। প্রতিবেশী দেশ, তাছাড়া অন্যান্য দেশের তুলনায় সস্তায় যাওয়া আসা করা যায় বলে এই দেশের প্রতি অনেকেরই আগ্রহ আছে। কিন্তু ভারতীয় ভিসা নেবার সময় হয়ে যায় নানা রকম সমস্যা। সঠিকভাবে ডকুমেন্ট জমা না দেবার কারণে অনেক সময়ই ভিসা রিজেক্ট হয়ে থাকে। আবার অনেক সময় দেখা যায়, সব ডকুমেন্ট ঠিকভাবে দেয়া থাকলেও সঠিক ভাবে সাজিয়ে দেয়া হয়নি বলে সমস্যা হয়ে গেছে।

আজ আসুন, দেখে নেয়া যাক কি কি ডকুমেন্ট লাগবে এবং কিভাবে সেগুলো সাজাবেন আপনি জমা দেবার সময়।

* অনলাইনে পূরণ করা ভিসা আবেদন এর প্রিন্ট কপি।

* জাতীয় পরিচয়পত্রের ফটোকপি / জন্ম নিবন্ধন এর ফটোকপি।

* বিদ্যুৎ / গ্যাস / পানি / টেলিফোন যেকোন একটা বিল এর স্পষ্ট কপি। কপি স্পষ্ট না হলে আসল কপিটি সাথে রাখতে হবে মিলিয়ে দেখাবার জন্য।

* ডলার এনডোর্সমেন্ট এর কপি / ব্যাংক স্টেটমেন্ট এর এর কপি / ক্রেডিট কার্ড বা ট্রাভেল কার্ড উভয় পৃষ্ঠার কপি (কার্ডের শুরুর বা শেষের কিছু নাম্বার মুছে দেবেন, সিভিসি নম্বরও মুছে দেবেন ফটোকপি থেকে।)

* ব্যবসায়ীদের জন্য ট্রেড লাইসেন্স / এন ও সি চাকুরীজীবিদের জন্য /  স্টুডেন্টদের জন্য প্রতিষ্ঠানের আইডি কার্ড এবং এন ও সি।

* নিশ্চিত টিকিটের ফটোকপি, আসলটি পাসপোর্টের সাথে সংযুক্ত করতে হবে। (যাদের জন্য প্রযোজ্য।)

* ভারতীয় ভিসা আবেদনকারীর পাসপোর্টের ফটোকপি।

* নিজের সাথে সাথে পরিবারের অন্য কারও ভিসার আবেদন জমা দিতে প্রত্যেক ভিসার আবেদন এর সাথে নিজের পাসপোর্টের ফটোকপি যোগ করতে হবে।

* সকল পুরাতন পাসপোর্ট সাথে রাখতে হবে, যদি দেখতে চাওয়া হয় এই কারণে।

আরও পড়ুন:  শিশুদের যেভাবে যৌন হয়রানির হাত থেকে বাঁচাবেন

এবারে আসুন এই ডকুমেন্টগুলো সাজিয়ে নেয়া যাক।

১. ভারতীয় ভিসার আবেদন পত্র অনলাইনে পুরণ করে প্রিন্ট করে নিন। খেয়াল করুন সবার নিচে বারকোড অংশটি ঠিকভাবে প্রিন্ট হয়েছে কী না।

২. ভিসার আবেদনে অবশ্যই অনলাইনে আপলোড করা ছবি থাকতে হবে।

৩. ভিসার আবেদনে দুই জায়গায় স্বাক্ষর করা হয়েছে কিনা নিশ্চিত হয়ে নিন।

৪. জাতীয় পরিচয়পত্রের কপি / জন্ম নিবন্ধন এর কপি।

৫. বিদ্যুৎ / গ্যাস / পানি / টেলিফোন বিল এর স্পষ্ট কপি। কপি স্পষ্ট না হলে আসল কপিটি সাথে রাখতে হবে মিলিয়ে দেখাবার জন্য।

৬. ডলার এনডোর্সমেন্ট এর কপি / ব্যাংক স্টেটমেন্ট এর কপি / ক্রেডিট কার্ড বা ট্রাভেল কার্ড দুপাশ এর কপি।

৭. ট্রেড লাইসেন্স / এন ও সি / স্টুডেন্টদের জন্য আইডি কার্ড এর কপি।

৮. নিশ্চিত টিকিটের ফটোকপি, আসলটি পাসপোর্টের পেছনের কভার পাতার সাথে সংযুক্ত করতে হবে স্টেপল করে।

৯. ভিসা আবেদনকারীর পাসপোর্টের ফটোকপি।

১০. পরিবারের অন্য কারও হয়ে ভিসার আবেদন জমা দিতে একই সাথে নিজের পাসপোর্টের কপিও দিতে হবে।

সঠিকভাবে না সাজিয়ে দিলে আপনার আবেদন বাতিল হতে পারে এবং আপনি যে ফি জমা দিয়েছেন তা ফেরত পাবেন না। সুতরাং ভারতীয় ভিসা আবেদনে জমা দেবার সময় একটু খেয়াল করতে হবে আপনার সব ডকুমেন্ট সঠিকভাবে সংযুক্ত করা হয়েছে কিনা।

শেয়ার করুন :

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন

Loading Facebook Comments ...