প্রচ্ছদ বাংলাদেশ রাজনীতি

‘ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন’ প্রত্যাহার না করলে আন্দোলন

109
‘ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন’ প্রত্যাহার না করলে আন্দোলন
ছবি : সংগৃহীত
পড়া যাবে: < 1 minute

গণফোরাম সভাপতি ও জাতীয় ঐক্যের সমন্বয়ক, সংবিধান প্রণেতা ড. কামাল হোসেন বলেছেন, “সংসদে পাস করানো আইন চাইলে ফেলও করানো যায়। যদি ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন অবিলম্বে প্রত্যাহার না করা হয় তাহলে আন্দোলনের মাধ্যমে তা বাতিলে বাধ্য করা হবে।”

বুধবার জাতীয় প্রেসক্লাবে বরেণ্য সাংবাদিক আতাউস সামাদের ষষ্ঠ মৃত্যুবার্ষিকীর আলোচনা সভায় এসব কথা বলেন কামাল হোসেন।

তিনি বলেন, “সংবাদপত্রের স্বাধীনতা অবশ্যই থাকবে। সংবাদপত্রের স্বাধীনতা বঙ্গবন্ধুর স্বপ্ন ছিল। অবিলম্বে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন বাতিল করা হোক। আমরা সংসদে সদ্য পাস হওয়া ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন বাতিলের দাবি জানাচ্ছি।”

আরও পড়ুন:  ড. কামাল হোসেন বিএনপি-জামায়াতের লেজ

জাতীয় ঐক্যের সমন্বয়ক বলেন, “কালো কোর্ট পরে যারা দুর্নীতি করে আবার বঙ্গবন্ধুর প্রতি শ্রদ্ধাও জানায় তারা মোনাফেক। কোরআনে আছে কাফেরদের চাইতেও মোনাফেক খারাপ।”

“সাম্প্রতিক নিরাপদ সড়কের দাবিতে কোমলমতি শিশু-কিশোরদের আন্দোলনে পুলিশের পাশে সাদা পোশাকধারী লাঠিয়াল কারা, জনগণকে লাঠিপেটা করেছে যারা তারা কারা? এ কাজগুলো সংবিধান পরিপন্থী। এদের আইনের আওতায় আনা হোক।” যোগ করেন ড. কামাল।

এসময় তিনি আরও বলেন, “সংবাদপত্রের স্বাধীনতার জন্য জাতীয় ঐক্য জরুরি। এটা কোনো দলের নয়। এটা দেশের আপমার জনগণের ঐক্য। রাস্তায় না নামলে সমস্যার সমাধান হবে না। রাস্তায় না নামলে সরকার মনে করে কিছু হবে না।”

আরও পড়ুন:  ১ অক্টোবর থেকে আন্দোলন , আপনারা রেডি হয়ে যান

বাংলা ম্যাগাজিন /এসপি