প্রচ্ছদ আন্তর্জাতিক

ভ’য়ে এগিয়ে এলোনা কেউ, হাসপাতা’লের সামনেই করো’নায় বৃদ্ধের মৃ’ত্যু

29
ভ'য়ে এগিয়ে এলোনা কেউ, হাসপাতা'লের সামনেই করো'নায় বৃদ্ধের মৃ'ত্যু
পড়া যাবে: < 1 minute

করো’নাভাই’রাস মহামা’রীর প্রকোপ থেকে বাঁচতে পাটনা সিটির নালন্দা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালকে ভা’রত সরকার কোভিড হাসপাতাল বলে তিন মাস আগে ঘোষণা করেছিল ৷ হাসপাতাল কতৃপক্ষের দাবি তাদের হাসপাতা’লে একের পর এক করো’নার আ’ক্রান্ত রোগীদের চিকিৎসা হচ্ছে। তবে শুক্রবারের এক ঘটনা হাসপাতা’লে আসল চিত্র সামনে এনে দিয়েছে।

শুক্রবার হাসপাতা’লের গেটের সামনেই করো’না পীড়িত এক ব্যক্তি শ্বা’সক’ষ্টে ধুকে ধুকে মা’রা যায় ৷ কিন্তু চিকিৎসক ও স্বাস্থ্যকর্মীরা তাঁকে এভাবে ক’ষ্ট পেতে দেখেও কোন ব্যবস্থা নেন না। সকলেই বিষয়টি দেখেও না দেখার ভান করছিল।

যে ছবিটি ভাই’রাল হয়েছে তাতে দেখা যাচ্ছে করো’না আ’ক্রান্ত অই ব্যক্তি হাসপাতা’লের মেডিসিন ওয়ার্ডের সামনে অ’ত্যন্ত যন্ত্র’নায় কাতরাচ্ছেন ৷ বাড়ির লোক তাঁকে ওখান থেকে ওঠানোর চেষ্টা করছেন ৷ কিন্তু হাসপাতা’লের কেউ তাঁদের দিকে সামান্য সাহায্যের হাতও বাড়িয়ে দেয়নি ৷

স্বাস্থ্যকর্মী থেকে সুরক্ষাকর্মী সকলেই শুধুমাত্র দর্শকের মত দাঁড়িয়ে দেখছিল। শেষ পর্যন্ত ক’ষ্ট সহ্য করতে না পেরে অই ব্যক্তি মা’রা যান। মৃ’ত ব্যক্তি সারণ জে’লার নৌতনের বাসিন্দা ৷ তাঁর বয়স ছিল ৫৮ বছর ৷ তাঁকে ১৭ জুন হাসপাতা’লে ভর্তি করা হয়েছিল ৷

অ’সুস্থ অবস্থায় যখন তাঁকে হাসপাতা’লে নিয়ে যাওয়া হয়েছিল তখন সেখানে তিনি করো’না পজিটিভ জানা যায়। এরপর তাঁকে অন্য ওয়ার্ডে পাঠানোর জন্য কোনও ট্রলিও দেওয়া হয়নি ৷ সেখানেই মেডিসিন ওয়ার্ডের সামনে মাটিতে পড়ে যান ওই অ’সুস্থ রোগী ৷ আর সেখানেই করুণ মৃ’ত্যু হয়।

মৃ’তের পুত্র সচিন কুমা’র জানিয়েছেন তার বাবার শ্বা’সক’ষ্ট ছিলই ৷ তারসঙ্গে যোগ হয়েছিল জ্বরের উপসর্গ৷ প্রচণ্ড জ্বর থাকার সময় যদি তাঁর চিকিৎসা করা হত তাহলে হয়ত তাকে বাঁ’চানো যেত ৷ সেই সাথে এই ঘটনার ত’দন্ত চেয়েছে সে ৷

এদিকে এই ঘটনার পর নিজেদের দোষ স্বীকার করেছে হাসপাতার কতৃপক্ষ। এই গাফিলতি কিভাবে হলো তা পূর্ণ খতিয়ে দেখা হবে বলে বলছে তারা।

বাংলা ম্যাগাজিন /এসপি

সাম্প্রতিক খবর আপনার মুঠোফোনে পেতে এখনি প্লে-স্টোর থেকে Bangla Magazine সার্চ করে ডাউনলোড করুন বাংলাদেশের নাম্বার ওয়ান নিউজ ম্যাগাজিন অ্যাপটি। অথবা ডাউনলোড করতে ক্লিক করুন এখানে। ভালো লাগলে অবশ্যই রেটিং দিয়ে উৎসাহী করুন।

  • 14
    Shares