প্রচ্ছদ বাংলাদেশ জাতীয়

শ্বশুরের ধর্ষণে অন্তঃসত্ত্বা গৃহবধূ

207
শ্বশুরের ধর্ষণে অন্তঃসত্ত্বা গৃহবধূ
পড়া যাবে: 2 মিনিটে

শরীয়তপুর জে’লার ভেদরগঞ্জ উপজে’লার সখিপুর থা’নায় এক বাকপ্রতিব’ন্ধী গৃহবধূকে (২৩) তার শ্বশুর বারেক সরদার ধ’র্ষণ করেছে বলে অ’ভিযোগ পাওয়া গেছে।

ওই গৃহবধূ অন্তঃসত্ত্বা হওয়ার বিষয়টি জানাজানি হওয়ার পর জুনের প্রথম সপ্তাহে সালিস বৈঠকে ঘটনাটি ধামাচাপা দেওয়ার জন্য ৭ লাখ টাকায় মীমাংসা করে স্থানীয় মাতব্বররা।

শরীয়তপুরের কর্ম’রত সাংবাদিকরা ঘটনাটি জানতে পেরে ২৫ জুন ঘটনাস্থলে যায় এবং সখিপুর থা’না পু’লিশকে বিষয়টি জানায়। পরে সন্ধ্যায় গৃহবধূর চাচা বাদী হয়ে বারেক সরদারের বি’রুদ্ধে মা’মলা দায়ের করেন।

রাত সাড়ে ১২ টার দিকে বারেককে গ্রে’ফতার করে পু’লিশ। ২৬ জুন দুপুরে তাকে শরীয়তপুর আ’দালতের মাধ্যমে কারাগারে প্রেরণ করা হয়। পাশাপাশি ওই গৃহবধূকে পু’লিশের তত্ত্বাবধানে শরীয়তপুর সদর হাসপাতা’লে মেডিকেল পরীক্ষার জন্য আনা হয়।

পু’লিশ ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে, ওই গৃহবধূকে তার শ্বশুর প্রায়ই ধ’র্ষণ করত। সম্প্রতি ওই গৃহবধূরর অন্তঃসত্ত্বা হওয়ার বিষয়টি জানাজানি হয়। ঘটনাটি ধামাচাপা দিতে স্থানীয় মাতব্বররা সালিস বৈঠকে অ’ভিযু’ক্ত বারেক সরদারকে ৭ লাখ টাকা জ’রিমানা করেন।

গৃহবধূর চাচা জানান, স্থানীয় মাতব্বররা এ বিষয় নিয়ে এক দফা বৈঠক করেন। বৈঠকে অ’ভিযু’ক্ত ব্যক্তিকে ৭ লাখ টাকা জ’রিমানা ও একটি টিনের ঘরের মাধ্যমে ঘটনাটি মীমাংসা করেন। সঠিক বিচার পেতে মা’মলা করেছেন তিনি।

স্থানীয় মাতব্বর মা’ওলানা আনোয়ার বালা (রোমান) বলেন, গ্রাম্য সালিসের বৈধতা আছে। তাই সখিপুর থা’নার ওসির সঙ্গে কথা বলে, ওই গৃহবধূর কথা চিন্তা করে, স্থানীয় খোকা বালার বাড়ির ঘাটায় সালিশ বসানো হয়েছিল। সালিশে আমি, চরসেনসা’স ইউনিয়নের (ইউপি) সাবেক চেয়ারম্যান রফিক বালা, আরশি নগর ইউনিয়নের (ইউপি) প্যানেল চেয়ারম্যান নাবিল বালাসহ অন্তত এক হাজার লোকজন উপস্থিত ছিলেন।

জাতীয় মহিলা সংস্থার চেয়ারম্যান (শরীয়তপুর) অ্যাডভোকেট রওশন আরা বেগম বলেন, ঘটনাটি সালিস দরবারের বিষয় না। এটা আইনি বিষয়। মাতব্বররা যে কাজটি করেছে অন্যায় করেছে। আম’রা চাই অ’প’রাধীর সঠিক বিচার হোক।

অ’ভিযু’ক্ত ব্যক্তির স্ত্রী’ রাহিমা বেগম বলেন, আমা’র স্বামীকে মিথ্যা অ’পবাদ দিয়েছে। গ্রামের মুরুব্বিদের রায় মানতে হয়, এজন্য মেনে নিয়েছি। স্বামীকে কখনও খা’রাপ কাজ করতে দেখি নাই বা শুনি নাই।

সখিপুর থা’না পু’লিশের ভা’রপ্রাপ্ত কর্মক’র্তা (ওসি) মো. এনামুল হক বলেন, এ ঘটনায় মে’য়েটির চাচা সখিপুর থা’নায় নারী ও শি’শু নিযার্তন দমন আইনে মা’মলা করেছেন। গ্রে’ফতার ব্যক্তিকে শুক্রবার দুপুরে শরীয়তপুর আ’দালতে পাঠানো হয়েছে।

বাংলা ম্যাগাজিন /এসপি

সাম্প্রতিক খবর আপনার মুঠোফোনে পেতে এখনি প্লে-স্টোর থেকে Bangla Magazine সার্চ করে ডাউনলোড করুন বাংলাদেশের নাম্বার ওয়ান নিউজ ম্যাগাজিন অ্যাপটি। অথবা ডাউনলোড করতে ক্লিক করুন এখানে। ভালো লাগলে অবশ্যই রেটিং দিয়ে উৎসাহী করুন।

  • 33
    Shares