প্রচ্ছদ জানা অজানা

ভুলেও এই মাছ খাবেন না

30
ভুলেও এই মাছ খাবেন না
পড়া যাবে: < 1 minute

রক্তশূন্যতা কিংবা অসুখে ভুগলে সাধারণত রোগীদের জিওল মাছ খেতে বলা হয়েছে। কিন্তু গবেষকরা জানাচ্ছেন, এই মাছ এখন সম্পূর্ণ নিরাপদ নয়। জিওল মাছ পেটে গেলে এখন হিতে বিপরীত হতে পারে। শিং, মাগুর, শোল অথবা তেলাপিয়ার মতো জিওল মাছ সাধারনত খাল-বিল-ঝিল-ডোবা-এঁদো পুকুর এমনকী ধানখেতে চাষ করা যায়।

গবেষকরা বলছেন, এতেই ঘটছে বিপত্তি। এই জলাশয়গুলোতে শিল্পের বর্জ্য পদার্থ এসে বেশি মেশে। ফলে ওই দূষিত জলে মাছ চাষ হলে শরীরে মারণ রোগ থাবা বসানোর সম্ভাবা প্রবল। এক গবেষণাতে জানা গিয়েছে, দূষিত জলে চাষ করা জিওল মাছ খেলে ডাই অক্সিনা কমপাউন্ড আমাদের শরীরে প্রবেশ করে। ফলে বন্ধ্যাত্বের সমস্যা দেখা যায়।

আরও পড়ুন:  হৃদরোগ এড়াতে ডা. দেবী শেঠির কিছু চমৎকার পরামর্শ

এমনকি এই মাছ ইমিউনিটি সিস্টেম দূর্বল করে, ত্বক ও লিভারে সমস্যা দেখা দেয়। এমনকি ক্যানসারেরও সম্ভাবনা থাকে। কলকাতাতে এই সমস্যা বেশি দেখা গিয়েছে বলে জানিয়েছেন যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষকরা। প্লাস্টিক এবং তেলের কারখানা থেকে দূষণ বেশী ছড়াচ্ছে বলে মত তাদের।

গবেষনায় দেখা দিয়েছে, সুন্দরবন এলাকায় বিদ্যাধরী নদীতে এই দূষণ সবথেকে বেশী। এই নদীতে চাষ হওয়া মাছও ভয়ঙ্কর বিপদজ্জনক। তবে দূষণহীন জলে যদি জিওল মাছ চাষ হয় তাহলে সেই মাছের পুষ্টিগুন নিয়ে দ্বিধাগ্রস্থ হওয়ার কোনও কারণ নেই।

বাংলা ম্যাগাজিন /এসপি

সাম্প্রতিক খবর আপনার মুঠোফোনে পেতে এখনি প্লে-স্টোর থেকে Bangla Magazine সার্চ করে ডাউনলোড করুন বাংলাদেশের নাম্বার ওয়ান নিউজ ম্যাগাজিন অ্যাপটি। অথবা ডাউনলোড করতে ক্লিক করুন এখানে। ভালো লাগলে অবশ্যই রেটিং দিয়ে উৎসাহী করুন।

  • 4
    Shares