ইউরোপএক্সক্লুসিভবিশ্ব সংবাদ

ইউক্রেন যুদ্ধে রাশিয়ার সামরিক বহরে Z চিহ্নের রহস্য

ইউক্রেন সংকট শুরু হওয়ার পর থেকে দেশটিতে রাশিয়ার সামরিক ট্যাংক ও অন্যান্য সামরিক যানের উপস্থিতি নিয়মিত হয়ে উঠেছে। একই সঙ্গে নিয়মিত হয়ে উঠেছে রুশ সামরিক যানগুলোতে লেখা ‘জেড (Z) চিহ্নও। ১৩ দিন আগে ইউক্রেন যুদ্ধ শুরু হওয়ার পর থেকে এই যানবাহনগুলো কিয়েভ ও ইউক্রেনের অন্যান্য শহরগুলোর আশপাশে ঘুরে বেড়াচ্ছে।

এসব যানবাহনের প্রত্যেকটিতেই আঁকা রয়েছে পুরু সাদা রঙে একটি ‘Z’ চিহ্ন।কেবল তাই নয় ইউক্রেনে রুশ সমর্থনকারীদের টি-শার্টেও আঁকা রয়েছে এই ‘Z’। ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম দা ইন্ডিপেনডেন্টের মতে, ‘Z’ প্রতীকটি ২০১৪ সালে যখন রুশ সেনাবাহিনী ক্রিমিয়ায় প্রবেশ করে তখনো তাঁদের যানবাহনে উপস্থিত ছিল। 

যুক্তরাজ্য ভিত্তিক সুপ্রাচীন প্রতিরক্ষা থিংকট্যাংক রয়্যাল ইউনাইটেড সার্ভিস ইনস্টিটিউটের (আরইউএসআই) সাবেক পরিচালক অধ্যাপক মাইকেল ক্লার্ক স্কাই নিউজকে গত মাসে জানিয়েছিলেন, এই প্রতীকটি সেনাবাহিনীর একটি ইউনিট বা যানবাহনের বহরের অবস্থানের সঙ্গে যোগাযোগ করার জন্য ব্যবহৃত হচ্ছে। 

রুশ থিংকট্যাংক গ্যালিনা স্টারভয়েটোভার ফেলো কামিল গালিভ এক টুইটে জানিয়েছেন, ‘Z’ হলো এমন একটি বর্ণ যেটিকে রাশিয়ার সামরিক বাহিনী ইউক্রেনের উদ্দেশ্যে দেশত্যাগ করা যানবাহনের গায়ে লিখে দিচ্ছে। কেউ কেউ এই ‘Z’ চিহ্নকে ‘Za pobedy বা জয়ের জন্য’ হিসেবে ব্যাখ্যা করছেন। আবার অনেকেই এই ‘Z’ কে-‘Zapad বা পশ্চিম’ বলে আখ্যা দিচ্ছেন। 

কামিল গালিভ তাঁর টুইটে আরও বলেছেন, ‘মাত্র কয়েক দিন আগেই উদ্ভাবিত নতুন এই প্রতীকটি রাশিয়ার নতুন আদর্শ ও জাতীয় পরিচয়ের প্রতীক হয়ে উঠেছে।’ সামরিক যানের বাইরেও অনেক রুশ নাগরিক, ব্যবসায়ী এবং রাশিয়ার বাইরে থাকা রুশ সমর্থকেরা স্বেচ্ছায় এই প্রতীক ব্যবহার করছেন।

কেউ কেউ নিজেদের টি-শার্ট, কেউ জ্যাকেটে এমনকি গাড়িতেও ব্যবহার করছেন। তবে অন্যান্য পর্যবেক্ষকেরা বলছেন, এই চিহ্নটি রুশ সৈন্যরা যুদ্ধক্ষেত্রে নিজদের যানবাহন শনাক্ত করতে ও ‘ভুলবশত নিজেদের মধ্যে যুদ্ধ এড়াতে’ সংকেত হিসেবে ব্যবহার করছে।

‘Z’ চিহ্নটি ছাড়াও রাশিয়ান সামরিক যানগুলোতে আঁকা অন্যান্য প্রতীকগুলি হলো—একটি ত্রিভুজের উভয় পাশে দুটি সমান্তরাল দাগ টানা, একটি বৃত্তের ভেতরে তিনটি বিন্দু ও ছোট একটি ত্রিভুজ। তবে, রাশিয়ার সামরিক কর্মকর্তারা আনুষ্ঠানিকভাবে এসব প্রতীক সম্পর্কে কিছু বলেননি।

” ‘Z’ চিহ্নটি প্রথম দেখা গিয়েছিল চলতি বছরের ২২ ফেব্রুয়ারি যেদিন রুশ সেনাবাহিনীর সামরিক যানগুলো দনেৎস্ক অঞ্চলে প্রবেশ করে। কিছু টুইটে প্রতীকটিকে রুশ সেনাবাহিনীর পদাতিকদের চিহ্নিত করতে ব্যবহৃত হচ্ছে বলে দাবি করা হয়। 

বাংলা ম্যাগাজিনে প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Flowers in Chaniaগুগল নিউজ-এ বাংলা ম্যাগাজিনের সর্বশেষ খবর পেতে ফলো করুন।ক্লিক করুন এখানে

Related Articles

Back to top button