জাতিসংঘের ওয়ার্ল্ড হ্যাপিনেস রিপোর্টে বিশ্বের সবচেয়ে সুখী দেশ ফিনল্যান্ড

লেখক: বাংলা ম্যাগাজিন
প্রকাশ: ২ মাস আগে

বিশ্বের সবচেয়ে সুখী দেশ ফিনল্যান্ড। আর সবচেয়ে অসুখী দেশ আফগানিস্তান। এমনটাই বলছে জাতিসংঘের ওয়ার্ল্ড হ্যাপিনেস রিপোর্ট। বিশ্বের প্রায় ১৫০ দেশের মধ্যে জরিপ চালিয়ে প্রতি বছর এই রিপোর্ট প্রকাশ করা হয়। এতে ২০২২ সালে বাংলাদেশের অবস্থান ৯৪তম স্থানে। ভালো থাকার ব্যাপারে ব্যক্তিগত অনুভূতি, জিডিপি লেভেল, জীবনের প্রসারতা সহ বিভিন্ন ক্ষেত্রের উপর নির্ভর করে এই সুখের মাপকাঠি ঠিক করা হয়। এ খবর দিয়েছে সিএনএন।

তালিকায় সবার শেষে ১৪৬তম স্থানে রয়েছে আফগানিস্তান। ভারতের অবস্থান ১৩৬তম এবং পাকিস্তানের অবস্থান ১২১তম স্থানে। তবে এই প্রতিবেশীদের থেকে তুলনামূলক ভাল অবস্থানে রয়েছে বাংলাদেশ। এ বছর তালিকায় বাংলাদেশের অবস্থান ৯৪তম। এছাড়া দক্ষিণ এশিয়ার দেশগুলোর মধ্যে নেপাল ও শ্রীলঙ্কা রয়েছে ৮৪ ও ১২৭তম অবস্থানে।

দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে ডেনমার্ক এবং তৃতীয় স্থানে রয়েছে আইসল্যান্ড। এছাড়া সপ্তম ও অষ্টম স্থানে রয়েছে সুইডেন ও নরওয়ে। জিডিপি, গড় আয়ু, কঠিন সময়ে সামাজিক সমর্থন, দুর্নীতির নিম্ন হার, সামাজিক বিশ্বাস এবং জীবনের প্রধান সিদ্ধান্ত গ্রহণের স্বাধীনতার মতো বিষয়গুলোতে ভাল করেছে এই অঞ্চলের দেশগুলো।

তালিকায় চতুর্থ স্থানে রয়েছে সুইজারল্যান্ড, পঞ্চম স্থানে রয়েছে নেদারল্যান্ড এবং ষষ্ঠ স্থানে আছে লুক্সেমবার্গ। মধ্যপ্রাচ্যের দেশ ইসরাইল স্থান পেয়েছে নবম স্থানে। আর দশম স্থানে রয়েছে নিউজিল্যান্ড। এছাড়া অন্যান্য দেশগুলোর মধ্যে কানাডা ১৫তম, যুক্তরাষ্ট্র ১৬তম এবং বৃটেন ১৭তম অবস্থানে রয়েছে। তালিকায় দেখা যাচ্ছে রাশিয়া রয়েছে ৮০ তম স্থানে ও ইউক্রেন রয়েছে ৯৮তম স্থানে। তবে বলে রাখা ভালো ২৪শে ফেব্রুয়ারি রাশিয়ার আগ্রাসন শুরুর আগেই তৈরি হয়েছিল এই রিপোর্ট।

এ বছরই এই রিপোর্ট বের হওয়ার ১০তম বছর পূর্ণ হলো। এরমধ্যে গত ৫ বছর ধরে টানা বিশ্বের সবচেয়ে সুখী দেশ হিসেবে স্বীকৃতি পেয়েছে ফিনল্যান্ড।২০২১ সালে যে তালিকা প্রকাশিত হয়েছিল তার মধ্যে প্রথম দশ দেশের মধ্যে যারা ছিল তারাই মোটামুটি এবারও প্রথমে রয়েছে। তবে কেবলমাত্র অস্ট্রিয়া এই প্রথম ১০ থেকে বেরিয়ে গিয়েছে। বাকিদের স্থান নিজেদের মধ্যেই একটু ওলটপালট হয়েছে। ফিনল্যান্ডের পাশাপাশি নর্ডিক দেশগুলোও তালিকায় ভাল স্থানে রয়েছে।