অপরাধইউরোপএভিয়েশনবিশ্ব সংবাদ

মাঝ আকাশে ছাত্রীর সঙ্গে শারীরিক সম্পর্ক, চাকরি খোয়ালেন প্রশিক্ষক

বিমানের ‌‘স্বয়ংক্রিয় ব্যবস্থা’ চালু করে মাঝ আকাশে ছাত্রীর সঙ্গে শারীরিক সম্পর্কে লিপ্ত হয়েছিলেন এক বিমান প্রশিক্ষক। সে সময় ঘনিষ্ঠ মুহূর্তের কিছু ছবি এবং ভিডিও তুলে রেখেছিলেন তারা। পরে সেগুলো প্রকাশ্যে আসতেই চাকরি থেকে বরখাস্ত করা হয়েছে ওই বিমান প্রশিক্ষক ও তার শিক্ষানবিশকে।

রাশিয়ার এক বিমান প্রশিক্ষণ কেন্দ্রে ঘটেছে এমন ঘটনা। ইন্ডিয়া টাইমস, আনন্দবাজার পত্রিকাসহ একাধিক আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমের খবরে এ তথ্য জানানো হয়েছে।মস্কো থেকে ২৫০ মাইল দক্ষিণ-পূর্বে অবস্থিত সাসোভো ফ্লাইট স্কুল অফ সিভিল এভিয়েশনে অতিরিক্ত সময় প্রশিক্ষণ দেওয়ার প্রলোভন দেখিয়ে ওই ছাত্রীকে শারীরিক সম্পর্কে উৎসাহিত করা হয় বলে অভিযোগ।

স্থানীয় গণমাধ্যমের বরাত দিয়ে প্রতিবেদনগুলোতে বলা হয়েছে, বিমানের ককপিটে শারীরিক সম্পর্কের ভিডিও সামনে আসার পর একজন রাশিয়ান পাইলট ও তার ছাত্রীকে বরখাস্ত করা হয়েছে। ঘটনার সময় ২৮ বছর বয়সী ওই প্রশিক্ষক তার ২১ বছর বয়সী ছাত্রীর সঙ্গে সেসনা ১৭২ বিমানে উড্ডয়ন করেছিলেন।

জিজ্ঞাসাবাদে শিক্ষানবিশ ওই ছাত্রী জানান, তাকে শারীরিকভাবে ঘনিষ্ঠ হওয়ার প্রস্তাব দেন বিমান প্রশিক্ষক। তিনি বিবাহিত হওয়ায় প্রথমে আপত্তি জানালেও পরে তাকে অতিরিক্ত সময় প্রশিক্ষণ দেওয়ার প্রলোভন দেখান তিনি (প্রশিক্ষক)। সেই প্রলোভনের ফাঁদে পা দিয়েই তিনি (ছাত্রী) তার প্রস্তাবে রাজি হন।

ঘনিষ্ঠ হওয়ার সময় তারা বিমানের ‘অটোপাইলট’ মোড চালু করেছিলেন বলেও জিজ্ঞাসাবাদে জানান ওই ছাত্রী। পরে ঘটনাটি তিনি এক সহকর্মীকে জানান। এমনকি তাকে ছবি ও ভিডিওগুলোও দেখান।পরে সেই সহকর্মী ব্যক্তিগত কারণে প্রতিশোধ নিতে প্রমাণসহ এই কেলেঙ্কারির কথা প্রকাশ্যে আনেন বলে প্রতিবেদনে বলা হয়েছে।

বাংলা ম্যাগাজিনে প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Flowers in Chaniaগুগল নিউজ-এ বাংলা ম্যাগাজিনের সর্বশেষ খবর পেতে ফলো করুন।ক্লিক করুন এখানে

Related Articles

Back to top button