ভিন্ন স্বাদের খবর

ভারতে কোচিং এর টিউশন ফি দিতে না পারায় ছাত্রীকে বিয়ে করলেন এক শিক্ষক

শিক্ষকের দায়িত্ব হলো পড়ুয়াদের সমাজের উপযুক্ত করে তোলা এবং তাদের সঠিক পথ বেছে নিতে সাহায্য করা। আমাদের সমাজে শিক্ষকের একটি গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রয়েছে। কারণ পড়ুয়াদের ভবিষ্যৎ গড়ে তোলার জন্য শিক্ষকের ভূমিকা খুবই গুরুত্বপূর্ণ। কিন্তু, বর্তমানে শিক্ষকরা এমন কাণ্ড ঘটাচ্ছেন যা খুবই নিন্দনীয় এবং লজ্জাজনক।

টিউশন ফি দিতে না পারায় ছাত্রীকে বিয়ে করতে বাধ্য করেছেন এক শিক্ষক। এ ঘটনা ঘটেছে ভারতে। দেশটির সংবাদমাধ্যম আনন্দবাজারের এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়।জানা যায়, ওই ছাত্রীকে বাধ্য করে বিয়ে করেছেন—এমন স্বীকারোক্তিমূলক একটি ভিডিও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে দিয়েছেন শিক্ষক। এরপরই তোলপাড় শুরু হয়। মুহূর্তে ভাইরাল হয় ভিডিওটি।

অনেকেই বলছেন, একজন শিক্ষকের মানসিকতা যদি সত্যিই এমন হয়, তবে তা সমাজের জন্য চিন্তার বিষয়। প্রতিদিন শিক্ষকদের নানা কাজ আমাদের অবাক করছে। এ ঘটনাও তার মধ্যে অন্যতম। ছাত্রী টিউশন ফি দিতে না পারায় তার সঙ্গে এমন আচরণ কখনওই কাম্য নয়।

ভিডিওতে দেখা যায়, শিক্ষক ও ছাত্রী পাশাপাশি দাঁড়িয়ে আছেন। ওই ছাত্রীর কপালে শিক্ষকের দেওয়া সিঁদুর। শিক্ষক বেশ গর্বের সঙ্গে বলছেন, ‘ও আমার কাছেই পড়ত। আমি একটি কোচিং চালাই। কিন্তু দীর্ঘদিন ধরে ও টিউশন ফি দিতে পারছিল না। টিউশন ফি দিতে না পারার জন্য ওকে আমি বিয়ে করেছি।’

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভাইরাল হওয়া ভিডিওটি শেয়ার করা হয়েছে ইনস্টাগ্রামে। bhutni_ke_memes নামের একটি অ্যাকাউন্ট থেকে সেই ভিডিও ইনস্টাগ্রামে শেয়ার করা হয়।

বাংলা ম্যাগাজিনে প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Flowers in Chaniaগুগল নিউজ-এ বাংলা ম্যাগাজিনের সর্বশেষ খবর পেতে ফলো করুন।ক্লিক করুন এখানে

Related Articles

Back to top button