জীবন-যাপনবাংলাদেশসচেতনতা

শিশুর জন্য বর্ষার রেইনকোট কেনার আগে যে বিষয়গুলো মনে রাখবেন

রেইনকোট বা বর্ষাতিতেও ইদানীং বেশ বৈচিত্র্য দেখা যাচ্ছে। ছোটদের বর্ষাতিতে দেখা যাচ্ছে মজার মজার সব কার্টুন চরিত্র। ব্যাটম্যান, স্পাইডারম্যান, ডোরেমন, মিকি মাউস, সিনড্রেলা, এলসা, ডোরা, প-পেট্রল—কে নেই। কোনোটায় আবার প্রকৃতির আবহ: ঘাস, ফুল, লতাপাতা, ফড়িং।

তবে শুধু এসবে ভুললেই চল শিশুর বর্ষাতি নির্বাচন করতে হবে এমন, যেন সেটি পরতে আরামদায়ক এবং সহজে ভাঁজ করে স্কুল ব্যাগে দেওয়া যায়।আকার বুঝে কিনুন, এক স্তর না বহু স্তর কিনুন।ছেলেশিশুদের জন্য দুই পার্টের বর্ষাতি কেনার চেষ্টা করুন ।

শিশুকে বেশিক্ষণ বর্ষাতি পরিয়ে রাখা উচিত নয়। এতে ঠান্ডা লেগে যাওয়ার আশঙ্কা থাকে। তাই যত তাড়াতাড়ি সম্ভব শুকনো স্থানে নিয়ে বর্ষাতি খুলে দিতে হবে। সঠিক যত্ন নিলে অনেক দিন বর্ষাতি ব্যবহার সম্ভব। কেনার সময় উপকরণ বুঝে এটি ধোয়ার নিয়ম দেওয়া থাকে, সেইভাবে সংরক্ষণ করতে হবে। আর না থাকলে অল্প কিছুক্ষণ গুঁড়া সাবানে ভিজিয়ে রেখে হালকা রোদে শুকিয়ে নিলেই হবে।

শিশুর বয়স এবং আকার বুঝে বর্ষাতি কিনতে হবে। একটু এদিক–ওদিক হলেই পানি ঢোকার আশঙ্কা থাকে। দৈর্ঘ্যটা বিশেষভাবে বিবেচ্য। চেইন ও বোতাম দুই ধরনই পাওয়া যায়। সুবিধামতো নির্বাচন করুন। মাথা ঢাকার জন্য যুক্ত করা থাকে হুডি। হুডির অংশটি সঠিকভাবে লাগছে কি না দেখে নিন। কারণ, মাথায় পানি লাগলেই নানা রকম অসুখ দেখা দিতে পারে।

ছেলেশিশুদের জন্য দুই পার্টের বর্ষাতিও পাওয়া যাচ্ছে।গুণগত মান বোঝার জন্য উপকরণ খুব জরুরি। পলিয়েস্টার, প্যারাস্যুট, প্লাস্টিক কাপড় দিয়েই তৈরি করা হয়েছে বেশির ভাগ বর্ষাতি।

উজ্জ্বল রংই প্রাধান্য পেয়েছে, আছে হলুদ, কমলা, নীল, গোলাপি, কুসুমহলুদ, সবুজ, টিয়া, সাদা, কালো রঙের বর্ষাতি। বৃষ্টির মধ্যে উজ্জ্বল রঙের বর্ষাতি বেছে নেওয়া উচিত। এতে করে ঝুমবৃষ্টিতে দূর থেকেও বোঝা যাবে সামনে কোনো শিশু হেঁটে আসছে।

এক স্তরের বর্ষাতিগুলোই এখন চাহিদার শীর্ষে। এক স্তরের পাতলা বর্ষাতি সব জায়গায় বহন করাও সহজ। তবে এগুলোতে পানি ঢোকার একটা আশঙ্কা থেকেই যায়। অন্যদিকে দুই–তিন স্তরের বর্ষাতিগুলো একটু ভারী হলেও পানি ঢোকার আশঙ্কা নেই। সামনে চেইন দেওয়া থাকে। ওপরের অংশটি ভিজে গেলে খুলে ফেলার সুযোগ রয়েছে।

দরদাম ও যেখানে পাওয়া যাবেঃ শিশুদের বর্ষাতি ৫০০ থেকে ২ হাজার টাকার মধ্যে পাওয়া যাবে। সেলাই, উপকরণ এবং নকশার ওপর দামের তারতম্য নির্ভর করে। পাওয়া যাবে রাজধানীর ছোট–বড় সব ধরনের বাজারেই। নিউমার্কেট, গাউছিয়া, মতিঝিল, পল্টন, গুলিস্তান, মৌচাক, মিরপুর ও ফার্মগেটে কিনতে পাওয়া যাবে বর্ষাতি। এ ছাড়া বসুন্ধরা সিটি, যমুনা ফিউচার পার্ক, ইস্টার্ন মল্লিকা, রাপা প্লাজা, মাসকট প্লাজাসহ বিভিন্ন শপিংমলে পাওয়া যাবে। ঘরে বসে কিনতে চাইলে আছে অনলাইন দোকান।

বাংলা ম্যাগাজিনে প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Flowers in Chaniaগুগল নিউজ-এ বাংলা ম্যাগাজিনের সর্বশেষ খবর পেতে ফলো করুন।ক্লিক করুন এখানে

Related Articles

Back to top button