প্রচ্ছদ আইন-আদালত

স্বামী রিফাতকে হ*ত্যায় জ*ড়িত থাকার কথা স্বীকার মিন্নির

78
পড়া যাবে: 2 মিনিটে

বরগুনার আলোচিত রিফাত শরীফ হ*ত্যায় জ*ড়িত থাকার কথা স্বীকার করে আদালতে স্বী*কারোক্তিমূ*লক জ*বানব*ন্দি দিয়েছেন মা*মলার প্রধান সা*ক্ষী ও নি*হত রিফাতের স্ত্রী আয়শা সিদ্দিকা মিন্নি। পাঁচদিনের রি*মান্ডের দু’দিন শেষে মিন্নিকে শুক্রবার দুপুরে বরগুনার সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিট্রেট আদালতে হাজির করে পুলিশ।

পরে আদালতের বিচারক মোহাম্মদ সিরাজুল ইসলাম গাজীর কাছে রিফাত হ*ত্যাকা*ণ্ডে জ*ড়িত থাকার কথা স্বীকার করে স্বী*কারোক্তিমূ*লক জ*বানব*ন্দি দেন মিন্নি। স্বী*কারোক্তিমূ*লক জ*বানব*ন্দি শেষে আদালত তাকে কা*রাগা*রে পাঠানোর নির্দেশ দেন।

এ বিষয়ে রিফাত হ*ত্যা মা*মলার তদন্তকারী কর্মকর্তা ও বরগুনা সদর থানা পুলিশের ওসি (তদন্ত) মো. হুমায়ুন কবির বলেন, আজ মিন্নি রিফাত হ*ত্যাকা*ণ্ডে জ*ড়িত থাকার কথা স্বীকার করে স্বী*কারোক্তিমূ*লক জ*বানব*ন্দি দিয়েছেন। জ*বানব*ন্দি গ্রহণ শেষে আদালত তাকে কা*রাগা*রে পাঠানোর নির্দেশ দেন।

এর আগে গত মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ৯টার দিকে বরগুনার মাইঠা এলাকার বাবার বাসা থেকে বাবা মোজাম্মেল হোসেন কিশোরসহ মিন্নিকে জি*জ্ঞাসাবা*দ ও তার বক্তব্য রেকর্ড করতে বরগুনা পুলিশ লাইন্সে নিয়ে যায় পুলিশ। এরপর দীর্ঘ ১০ ঘণ্টার জি*জ্ঞাসাবা*দ ও বিভিন্ন মাধ্যম থেকে পাওয়া তথ্য-উপাত্ত পুঙ্খানুপুঙ্খভাবে বিশ্লেষণ ও পুলিশের কৌশলী এবং বুদ্ধিদীপ্ত প্রশ্নের উত্তর দিতে গিয়ে আ*টকে যান মিন্নি। এ কারণে তাকে এ মা*মলায় গ্রে*ফতার দেখানো হয়। দীর্ঘ জি*জ্ঞাসাবা*দ ও অন্যান্য সোর্স থেকে পাওয়া তথ্য-উপাত্তে হ*ত্যাকা*ণ্ডের সঙ্গে রিফাতের স্ত্রী মিন্নির স*ম্পৃক্ততার প্র*মাণ পেয়েছে পুলিশ।

আরও পড়ুন:  সন্ত্রাসীদের বাঁচাতেই আমার বিরুদ্ধে আজেবাজে কথা লেখালেখি হচ্ছে

মিন্নিকে রি*মান্ডে নেয়া হবে কিনা প্রশ্নে পুলিশ সুপার বলেন, মা*মলার সঠিক ত*দন্তের স্বার্থে তার বিরুদ্ধে রি*মান্ড চাওয়া হবে। ব্যক্তিগত কারণ ও আ*ক্রোশ থেকে এই রো*মহর্ষ*ক হ*ত্যাকা*ণ্ড ঘটেছে। হ*ত্যাকা*ণ্ডের সঙ্গে রিফাতের স্ত্রী মিন্নি স*রাসরি সম্পৃক্ত।

এরপর বুধবার বিকেল ৩টার দিকে বরগুনার জু*ডিশিয়া*ল ম্যাজিস্ট্রেট আ*দালতে মিন্নিকে হাজির করে সাতদিনের রি*মান্ড আ*বেদন করে পুলিশ। পরে শুনানি শেষে মিন্নির পাঁচদিনের রি*মান্ড ম*ঞ্জুর করেন আ*দালতের বিচারক মোহাম্মদ সিরাজুল ইসলাম গাজী।

পরদিন বৃহস্পতিবার বরগুনার পুলিশ সুপার মো. মারুফ হোসেন জানিয়েছিলেন, মঙ্গলবার দিনভর জি*জ্ঞাসাবা*দ ও বুধবার রি*মান্ড ম*ঞ্জুরের পর পুলিশের জি*জ্ঞাসাবা*দে রয়েছেন আয়শা সিদ্দিকা মিন্নি। ইতোমধ্যে মিন্নি স্বামী রিফাত শরীফ হ*ত্যাকা*ণ্ডে জ*ড়িত থাকার কথা স্বী*কার করেছেন। এ হ*ত্যার প*রিকল্পনা*র সঙ্গেও তিনি যুক্ত ছিলেন।

আরও পড়ুন:  আগের দিন ও ঘটনার দিন মিন্নির সঙ্গে কথা বলেছে ঘা*তক নয়ন বন্ড,মোটরসাইকেলে ঘুরেছেন মিন্নি

গত শনিবার রাত ৮টার দিকে সংবাদ সম্মেলন করেন নি*হত রিফাত শরীফের বাবা আব্দুল হালিম দুলাল শরীফ। তিনি রিফাতের স্ত্রী আয়েশা সিদ্দিকা মিন্নিকে দ্রুত গ্রে*ফতারের দাবি জানান।

উল্লেখ্য, বরগুনা সরকারি কলেজের মূল ফটকের সামনের রাস্তায় ২৬ জুন সকাল ১০টার দিকে স্ত্রী আয়েশা সিদ্দিকা মিন্নির সামনে কু*পিয়ে জ*খম করা হয় রিফাত শরীফকে। বিকাল ৪টায় বরিশালের শেরেবাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে তার মৃ*ত্যু হয়। ২৭ জুন রিফাত শরীফের বাবা আবদুল হালিম দুলাল শরীফ বরগুনা থানায় ১২ জনের নামে এবং চার-পাঁচজনকে অ*জ্ঞাত আ*সামি করে মা*মলা করেন। প্রধান আ*সামি নয়ন বন্ড ২ জুলাই ভোরে পুলিশের সঙ্গে কথিত ব*ন্দুকযু*দ্ধে নি*হত হয়।

মা*মলায় এ*জাহা*রনা*মীয় সাতজন ও স*ন্দিগ্ধ সাতজনসহ ১৪ জনকে (মিন্নিসহ ১৫ জন) গ্রে*ফতার করেছে পুলিশ। এর মধ্যে ১০ জন স্বী*কারোক্তিমূ*লক জ*বানব*ন্দি দিয়েছেন, রি*মান্ডে আছে ৩ জন।

বাংলা ম্যাগাজিন /এসপি

বাংলা ম্যাগাজিন /এসপি