প্রচ্ছদ ধর্ম ও জীবন

হজে গিয়ে দ্বীন প্রচারে ব্যস্ত সময় পার করছেন সাকিব আল হাসান

18
পড়া যাবে: 3 মিনিটে

পূর্বনির্ধারিত পরিকল্পনা অনুযায়ী গত ২ আগস্ট মা শিরিন আক্তারকে সঙ্গে নিয়ে হজ করতে সৌদি আরব গিয়েছেন বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান। ওইদিন রাত ১১টার দিকে একটি নির্ধারিত ফ্লাইটে মাকে নিয়ে দেশ ছাড়বেন সাকিব। এর আগে স্ত্রী ও কন্যাকে নিয়ে সৌদি সরকারের নিমন্ত্রণে হজ করতে গিয়েছিলেন সাকিব আল হাসান। এছাড়া গত বছর মা ও মেয়েকে নিয়ে ওমরাহ পালন করেছিলেন এই টাইগার ক্রিকেটার।

দ্বিতীয়বারের মতো পবিত্র হজ পালন করতে মাকে নিয়ে সৌদি আরবে অবস্থান করছেন সাকিব।সম্প্রতি একটি ভিডিওতে দেখা যায়, সৌদিতে দ্বীন প্রচারে ব্যস্ত সময় পার করছেন তিনি।

বিশ্বকাপের পর কয়েকদিন নিজের ক্লান্তি-অবসাদ দূর করতে স্ত্রী ও কন্যাকে নিয়ে ইউরোপের দেশ ফ্রান্স ও সুইজারল্যান্ডে ভ্রমণ শেষে পরিবারকে যুক্তরাষ্ট্রে রেখে দেশে এসেছেন সাকিব।পবিত্র হজ শেষ হলেই দেশে ফিরবেন তিনি। ঘরের মাটিতে আফগানিস্তান-জিম্বাবুয়েকে নিয়ে ত্রিদেশীয় টি-টোয়েন্টি সিরিজে খেলবেন সাকিব।

এর আগে স্ত্রী-কন্যা নিয়ে বিদেশ ভ্রমণ শেষে দেশে ফিরেই চট্টগ্রামে সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে যোগ দেন সাকিব। তার হাতে তুলে দেয়া হয় নগর চাবি। পরে ঢাকায় ফিরে ডেঙ্গু প্রতিরোধে সচেতনতা কার্যক্রমে অংশ নেন তিনি।

সূত্র জানায়, ত্রিদেশীয় সিরিজ সামনে রেখে ২০ আগস্ট থেকে শুরু হবে জাতীয় দলের কন্ডিশনিং ক্যাম্প। হজের আনুষ্ঠানিকতা শেষে এ অনুশীলন ক্যাম্প দিয়ে ক্রিকেটে ফিরবেন সাকিব।

গত বছর সৌদি সরকারের আমন্ত্রণে স্ত্রী-কন্যাকে নিয়ে হজ করেন সাকিব। এবার গর্ভধারিণী মা শিরীন আক্তারকে সঙ্গে নিয়ে গেছেন তিনি। গেলবার হজে যান দেশটির রাজপরিবারের বিশেষ অতিথি হয়ে ‘ভিআইপি’ হিসেবে।

ফলে আর ১০ জনের মতো দীর্ঘ সময়ের প্যাকেজ নয়, রাষ্ট্রের সর্বোচ্চ পর্যায়ের ভিআইপির মতো হাতেগোনা ৭-৮ দিন হজ পালন করেন তিনি। তবে এ বছর নিজের মতো করে হজ করবেন সাকিব।

বাংলা ম্যাগাজিন /এসপি

সর্বশেষ আপডেট

Loading...

আপনার মতামত লিখুন :

Loading Facebook Comments ...