প্রচ্ছদ অপরাধ

প্রেমিকাকে ধ’র্ষ’ণ করে স্থানীয় যুবকদের হাতে তুলে দেন প্রেমিক!

58
প্রেমিকাকে ধ’র্ষ’ণ করে স্থানীয় যুবকদের হাতে তুলে দেন প্রেমিক!
পড়া যাবে: < 1 minute

পূর্ব পরিচয়ের সূত্রধরে মোবাইল ফোনে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে তুলে বিয়ের প্র’লো’ভনে ঢাকা থেকে স্বামী পরিত্যক্ত এক তরুণীকে গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জে ডেকে আনা হয়।

এরপর তাকে ধ’র্ষ’ণ করে প্রেমিক। নিজে ধ’র্ষ’ণ শেষে স্থানীয় যুবকদের হাতে তুলে দেন প্রেমিকাকে। পরে পা’লি’য়ে থানায় গিয়ে আশ্রয় নেন তরুণী। সং’ঘ’ব’দ্ধ ধ’র্ষ’ণের অ’ভি’যোগে চার যুবককে আ’ট’ক করেছে থানা পুলিশ।

পুলিশ ও অ’ভি’যো’গ সূত্রে জানা গেছে, ঢাকার একটি কারখানায় কাজ করার সময় ওই তরুণীর (২০) সঙ্গে পরিচয় হয় গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জ পৌর এলাকার চাষকপাড়া গ্রামের আনোয়ারুল ইসলামের ছেলে শাহাদত হোসেনের (২০)।

তরুণীর বাড়ি ফরিদপুর জেলার চক হরিরামপুর গ্রামে। পরিচয়ের সূত্র ধরে শাহাদত প্রায়ই ওই তরুণীর সঙ্গে মোবাইল ফোনে কথা বলতেন। এক পর্যায়ে গত মাসে শাহাদত তাকে গোবিন্দগঞ্জে আসতে বলেন। ওই তরুণী তার এক বান্ধবীসহ গোবিন্দগঞ্জে এসে দেখা করে চলে যান।

আরও পড়ুন:  নীলা হত্যা : মিজানসহ দুই সহযোগীকে ৭ দিনের রিমান্ডে চায় পুলিশ

পরবর্তীতে শাহাদতের সাথে মোবাইল ফোনে সম্পর্ক আরো গভীর হয়। এ অবস্থায় বখাটে শাহাদত তাকে গোবিন্দগঞ্জে আসতে বললে গত বুধবার সন্ধ্যা ৬টার দিকে তিনি গোবিন্দগঞ্জে আসেন।

রাতে স্থানীয় একটি হোটেলে শাহাদত তাকে ধ’র্ষ’ণ করেন। পরদিন তিনি কয়েকজন যুবকের হাতে তুলে দেন তরুণীকে। তারা গোবিন্দগঞ্জ পৌরসভার ১নম্বর ওয়ার্ডের একটি বাড়িতে আ’ট’কে রেখে তাকে পা’ল’ক্রমে ধ’র্ষ’ণ করে।

দুইদিন ধরে আ’ট’ক থাকার পর শুক্রবার তরুণী ওই বাড়ি থেকে পা’লি’য়ে বেরিয়ে লোকজনের সহায়তায় গোবিন্দগঞ্জ থানায় উপস্থিত হন। এ সময় তিনি থানায় একটি লিখিত অ’ভি’যোগ দায়ের করেন।

অ’ভি’যো’গের ভিত্তিতে থানা পুলিশের একাধিক টিম বিভিন্ন স্থানে অভিযান পরিচালনা করে সং’ঘ’ব’দ্ধ ধ’র্ষ’ণে জড়িত থাকার অ’ভি’যো’গে চার যুবককে গ্রে’প্তা’র করেছে।

আরও পড়ুন:  বাসর রাতে বউকে আসছি বলে বের হয়ে ফিরলেন লা’শ হয়ে!

গ্রে’প্তা’র’কৃতরা হলেন- চাষকপাড়া গ্রামের আনোয়ারুল ইসলামের ছেলে শাহাদত হোসেন (২০), ফুলবাড়ি ইউনিয়নের নাচাই কোচাই গ্রামের রহমান সরকারের ছেলে জহুরুল সরকার (২৬), পৌরসভার বোয়ালিয়া (নয়াপাড়া) গ্রামের আ. হামিদের ছেলে জাহাঙ্গীর মিয়া (৩৫), থানাপাড়া (কসাইপাড়া) গ্রামের মৃ’ত ইউনুস আলীর ছেলে জাহিদ হাসান (২৭)।

গোবিন্দগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) একেএম মেহেদী হাসান বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, আ’সা’মিদের বি’রু’দ্ধে নারী ও শিশু নি’র্যা’ত’ন আইনে মা’ম’লা হয়েছে। অন্য আ’সা’মিদের ধরতে ‘অ’ভি’যা’ন অব্যাহত রয়েছে।

বাংলা ম্যাগাজিন /এসপি

সাম্প্রতিক খবর আপনার মুঠোফোনে পেতে এখনি প্লে-স্টোর থেকে Bangla Magazine সার্চ করে ডাউনলোড করুন বাংলাদেশের নাম্বার ওয়ান নিউজ ম্যাগাজিন অ্যাপটি। অথবা ডাউনলোড করতে ক্লিক করুন এখানে। ভালো লাগলে অবশ্যই রেটিং দিয়ে উৎসাহী করুন।