প্রচ্ছদ আইন-আদালত

এমসি কলেজে ধর্ষণ : ঘটনা অনুসন্ধানে হাইকোর্টের কমিটি

29
এমসি কলেজে ধর্ষণ : ঘটনা অনুসন্ধানে হাইকোর্টের কমিটি
পড়া যাবে: 2 মিনিটে

বাংলা ম্যাগাজিন ডেস্ক  :     স্বামীর সঙ্গে ঘুরতে গিয়ে সিলেটের এমসি কলেজের ছাত্রাবাসে নববধূকে গণধর্ষণের ঘটনা অনুসন্ধানের জন্য একটি কমিটি করে দিয়েছেন হাইকোর্ট। সিলেটের নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের বিচারক, মুখ্য মহানগর হাকিম, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসকের সমন্বয়ে এই তদন্ত কিমিটি গঠন করা হয়েছে। আগামী ১৫ দিনের মধ্যে এই কমিটিকে হাইকোর্ট বিভাগের রেজিস্ট্রারের মাধ্যমে প্রতিবেদন দাখিল করতে বলা হয়েছে।

ঘটনার শিকার গৃহবধূ, মামলার বাদী, এমসি কলেজের অধ্যক্ষ, হোস্টেল সুপার, এ ঘটনার প্রত্যক্ষদর্শী (যদি খুঁজে পাওয়া যায়) ও এই কমিটি যাদের প্রয়োজন মনে করবে, তাদের জবানবন্দি গ্রহণ করে কমিটিকে প্রতিবেদন দিতে নির্দেশ দিয়েছেন আদালত।

এমসি কলেজের ছাত্রাবাসে গৃহবধূকে গণধর্ষণ থেকে রক্ষায় অবহেলা ও কলেজ ক্যাম্পাসে অছাত্রদের অনুপ্রবেশ ঠেকাতে এমসি কলেজের অধ্যক্ষ ও হোস্টেল সুপারের ব্যর্থতায় এবং নীরবতায় তাদের বিরুদ্ধে যথাযথ আইনগত ব্যবস্থা নিতে কেন নির্দেশ দেওয়া হবে না তা জানতে চেয়ে রুল জারি করেছেন হাইকোর্ট।

আগামী দুই সপ্তাহের মধ্যে শিক্ষা সচিব, আইন সচিব, স্বরাষ্ট্র সচিব, জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় (উপাচার্য, রেজিস্ট্রার) কর্তৃপক্ষ, এমসি কলেজের অধ্যক্ষ, সিলেট জেলা প্রশাসক, সিলেট মহানগর পুলিশ কমিশনার এবং এমসি কলেজের হোস্টেল সুপারকে এই রুলের জবাবে দিতে বলা হয়েছে।

কোনো রকম ব্যর্থতা ছাড়া আদালতের আদেশের অনুলিপি (৩০ সেপ্টেম্বর) বুধবারের মধ্যে তদন্ত কমিটির সদস্যদের কাছে পৌঁছাতে সুপ্রিম কোর্টের হাইকোর্ট বিভাগের রেজিস্ট্রারকে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

আরও পড়ুন:  ফেনসিডিলের ব্যবসায়ী নাইম রিমান্ডে

এছাড়া সিলেটের পুলিশ কমিশনারকে বলা হয়েছে, এ অনুসন্ধান কমিটির যথাযথ নিরাপত্তার ব্যবস্থা করতে। তদন্তকাজে প্রয়োজনীয় সব ধরনের সরঞ্জাম সরবরাহ করতে সিলেটের জেলা প্রশাসককে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

গণধর্ষণের বিষয়ে প্রকাশিত গণমাধ্যমের প্রতিবেদন সংযুক্ত করে আদালতে উপস্থাপন করার পর মঙ্গলবার (২৯ সেপ্টেম্বর) হাইকোর্টের বিচারপতি মো. মজিবুর রহমান মিয়া ও বিচারপতি মুহিউদ্দিন শামীমের সমন্বয়ে গঠিত ভার্চুয়াল বেঞ্চ স্বপ্রণোদিত হয়ে এ আদেশ দেন।

আদালতে আজ এ বিষয়ে শুনানি করেন আইনজীবী হাফিজ মোহাম্মদ মেসবাহ উদ্দিন। তিনি সাংবাদিকদের জানান, নববধূকে রক্ষায় এমসি কলেজের অধ্যক্ষ ও হোস্টেল সুপারের ব্যর্থতায় তাদের বিরুদ্ধে যথাযথ আইনগত ব্যবস্থা নিতে রুল জারি করেন হাইকোর্ট। আগামী দুই সপ্তাহের মধ্যে কলেজের হোস্টেল সুপারসহ সংশ্লিষ্টদের এই রুলের জবাবে দিতে বলা হয়েছে।

ওই ঘটনার দায় নিরূপণে অনুসন্ধান করতে হাইকোর্ট একটি কমিটি করে দিয়েছেন। কমিটিতে থাকবেন সিলেটের নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের বিচারক, সিলেটের চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেস্ট এবং সিলেটের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সাধারণ)।

কমিটি ১৫ দিনের মধ্যে ঘটনার অনুসন্ধান করে হাইকোর্ট বিভাগের রেজিস্ট্রারের মাধ্যমে প্রতিবেদন আদালতে দাখিল করবে। কমিটিকে সার্বিক সহযোগিতা করতে সিলেটের জেলা প্রশাসন ও পুলিশ প্রশাসনকে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে বলে জানান আইনজীবী মোহাম্মদ মেসবাহ উদ্দিন। এ বিষয়ে পরবর্তী আদেশের জন্য আগামী ১৮ অক্টোবর দিন রেখেছেন হাইকোর্ট।

গত ২৭ সেপ্টেম্বর এমসি কলেজের এ ধর্ষণের ঘটনার প্রকাশিত খবর-প্রতিবেদন নজরে আনেন সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী মোহাম্মদ মিসবাহ উদ্দিন। তিনি এ বিষয়ে প্রয়োজনীয় আদেশের আরজি জানান।

আরও পড়ুন:  ‘স্যার আমি অপরাধ করেছি, ব্যবসা চালু হলে টাকা ফেরত দেব’

গত শুক্রবার (২৫ সেপ্টেম্বর) এমসি কলেজ ছাত্রাবাসে স্বামীকে আটকে রেখে এক নববধূকে ছাত্রলীগের ছয়জন নেতাকর্মী গণধর্ষণ করেন বলে অভিযোগ পাওয়া যায়। খবর পেয়ে রাত সাড়ে ১০টার দিকে ওই দম্পতিকে ছাত্রাবাস থেকে উদ্ধার করে পুলিশ। পরে ধর্ষণের শিকার তরুণীকে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ওসিসি সেন্টারে ভর্তি করা হয়।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্র জানায়, দক্ষিণ সুরমার নবদম্পতি শুক্রবার বিকেলে প্রাইভেটকারযোগে এমসি কলেজে বেড়াতে যান। বিকেলে এমসি কলেজের ছাত্রলীগের ছয়জন নেতাকর্মী স্বামী-স্ত্রীকে ধরে ছাত্রাবাসে নিয়ে প্রথমে মারধর করেন। পরে স্বামীকে আটকে রেখে স্ত্রীকে গণধর্ষণ করেন। ছাত্রলীগ নেতাদের প্রত্যেকেই ছাত্রাবাসে থাকেন।

এ ঘটনায় শনিবার ভোররাতে ছয়জনের নাম উল্লেখ করে অজ্ঞাত আরো দু-তিনজনকে অভিযুক্ত করে নগরের শাহপরান থানায় মামলা করেন ধর্ষিতার স্বামী। এছাড়া ঘটনার পর অভিযানে নেমে ছাত্রলীগ ক্যাডার সাইফুর রহমানের কক্ষ থেকে অস্ত্র উদ্ধার করে পুলিশ। এ ঘটনায় পৃথক আরেকটি মামলা করেন শাহপরান থানা পুলিশের উপ-পরিদর্শক (এসআই) মিল্টন সরকার। ছাত্রলীগ ক্যাডার সাইফুর রহমানকে আসামি করে মামলা করেন তিনি।

বাংলা ম্যাগাজিন /এসপি

সাম্প্রতিক খবর আপনার মুঠোফোনে পেতে এখনি প্লে-স্টোর থেকে Bangla Magazine সার্চ করে ডাউনলোড করুন বাংলাদেশের নাম্বার ওয়ান নিউজ ম্যাগাজিন অ্যাপটি। অথবা ডাউনলোড করতে ক্লিক করুন এখানে। ভালো লাগলে অবশ্যই রেটিং দিয়ে উৎসাহী করুন।

  • 7
    Shares