প্রচ্ছদ জাতীয় শিক্ষার্থীদের ১০ দফা দাবির সবগুলোই মেনে নেওয়ার পরেও বুয়েটে আন্দোলন কেন?

শিক্ষার্থীদের ১০ দফা দাবির সবগুলোই মেনে নেওয়ার পরেও বুয়েটে আন্দোলন কেন?

75
পড়া যাবে: 3 মিনিটে
advertisement

বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) শিক্ষার্থী আবরার ফাহাদ হ’ত্যা ইস্যুতে শিক্ষার্থীদের সব দাবি মেনে নেওয়ার পরও আ’ন্দোলন চালিয়ে যাওয়ার কোনো যৌক্তিকতা নেই বলে জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। আজ শনিবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে রাজধানীর খামারবাড়ির কৃষিবিদ ইনস্টিটিউশনে মহিলা শ্রমিক লীগের দ্বিতীয় কেন্দ্রীয় সম্মেলনের উদ্বোধন অনুষ্ঠানে তিনি একথা বলেন।এর আগে বেলুন ও পায়রা উড়িয়ে আওয়ামী লীগের ভ্রাতৃপ্রতিম এই সংগঠনের কেন্দ্রীয় সম্মেলনের উদ্বোধন করেন আওয়ামী লীগ সভাপতি।

advertisement

শেখ হাসিনা বলেন, ‘অ’পরাধীর কোনো পরিচয় নেই। যে অ’পরাধের সঙ্গে জড়াবে তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেবে সরকার। ’এ সময় বুয়েট শিক্ষার্থীদের ১০ দফা দাবি মেনে নেওয়ার পর আন্দোলনের যৌক্তিকতা নিয়ে প্রশ্ন তোলেন প্রধানমন্ত্রী। তিনি বলেন, ‘আবরার হ’ত্যার ইস্যুতে শিক্ষার্থীদের সব দাবি মেনে নেওয়ার পরও আ’ন্দোলন চালিয়ে যাওয়ার যৌক্তিকতা নেই। ’

আরও পড়ুন:  বুয়েট ছাত্রকে ‘পি*টিয়ে হ*ত্যা’র সময়ের সিসিটিভি ফুটেজ গায়েব,ছাত্রলীগের ২ নেতা আ*টক

অর্ধেক জনগোষ্ঠী নারীকে বাদ দিয়ে কোনোভাবেই একটি সমাজ গঠন করা সম্ভব নয় বলেও মন্তব্য করেন শেখ হাসিনা। এ সময় নিজেদের অধিকার নারীদের নিজেদের আদায় করে নিতে হবে বলেও সচেতন করেন তিনি।বাংলাদেশ এগিয়ে যাচ্ছে উল্লেখ করে শেখ হাসিনা বলেন, ‘খেলাধুলায় মেয়েরা আমাদের কম যাচ্ছে না। আপনারা দেখেছেন যে ১৫ বছরের নিচে মেয়েরা যে ফুটবল খেলছে, তারা তো খুব ভালো করছে। হয়তো বলা যায়, তারা চ্যাম্পিয়নও হয়ে যেতে পারে আঞ্চলিক ফুটবল প্রতিযোগিতায়।’

সরকার সারা দেশে কর্মজীবী নারীদের নি’রাপত্তা নিশ্চিত করতে নানা উদ্যোগ নিয়েছে বলেও জানান প্রধানমন্ত্রী।তিনি বলেন, ‘বাংলাদেশের নারীরা সুযোগ পেলে নিজেদের উন্নয়নের পাশাপাশি দেশের জন্যও কাজ করতে পারে। এক সময় নারীদের জন্য সব ক্ষেত্রে বৈষম্য ছিল। আওয়ামী লীগ ৯৬ সালে ক্ষমতায় আসার পর নারীদের জন্য সব ক্ষেত্রে শীর্ষ পর্যায়ে দায়িত্ব পালনের সুযোগ তৈরি করে। ’

আরও পড়ুন:  কড়া বার্তা প্রধানমন্ত্রীর; অ’পকর্মের সাথে জ’ড়িতদের যেন যুবলীগের বৈঠকে না আনা হয়

জ্ঞানপাপীরা ভারতের কাছে নদী বিক্রির অভিযোগ তুলছে জানিয়ে শেখ হাসিনা বলেন, ‘জিয়া, এরশাদ এবং খালেদা জিয়া সরকার ভারতের কাছ থেকে কোনো ক্ষেত্রেই ন্যায্য হিস্যা আদায় করতে পারেনি। মানুষের মধ্যে বিভ্রান্তি তৈরি করতে জ্ঞানপাপীরা ভারতের কাছে নদী বিক্রির অভিযোগ তুলছে। ’

বাংলা ম্যাগাজিন /এসপি

বাংলা ম্যাগাজিন /এসপি

সর্বশেষ আপডেট

  • 153
    Shares
advertisement