প্রচ্ছদ আইন-আদালত

ওয়াসার পানির দাম বাড়ানোর বৈধতা নিয়ে হাইকোর্টের রুল

11
ওয়াসার পানির দাম বাড়ানোর বৈধতা নিয়ে হাইকোর্টের রুল
পড়া যাবে: 2 মিনিটে

বাংলা ম্যাগাজিন ডেস্ক  :     সেবার মান না বাড়িয়ে কোনো কারণ ছাড়াই ১ এপ্রিল থেকে ঢাকা ওয়াসার পানির দাম বাড়ানো কেন বেআইনি ও অবৈধ ঘোষণা করা হবে না, তা জানতে চেয়ে রুল জারি করেছেন হাইকোর্ট।

রুলে পানি সরবরাহ ও পয়োনিষ্কাশন কর্তৃপক্ষ আইন, ১৯৯৬ এর ২২(৩) ধারা অনুযায়ী পানির দাম বাড়িয়ে গত ২৬ ফেব্রুয়ারি স্থানীয় সরকার বিভাগের জারি করা অফিস আদেশ কেন বেআইনি ও আইনগত কর্তৃত্ববহির্ভূত ঘোষণা করা হবে না এবং পানি সরবরাহ ও পয়োনিষ্কাশন কর্তৃপক্ষ আইন, ১৯৯৬ এর ২২(৩) ধারাটি কেন অবৈধ ঘোষণা করা হবে না, তা জানতে চেয়েছেন আদালত।

আগামী চার সপ্তাহের মধ্যে স্থানীয় সরকার বিভাগের সচিব, আইন সচিব, ঢাকা ওয়াসা, পানি সরবরাহ ও পয়োনিষ্কাশন কর্তৃপক্ষসহ সংশ্লিষ্টদের রুলের জবাব দিতে বলা হয়।

বিষয়টি নিশ্চিত করেন রিটকারী আইনজীবী তানভীর আহমেদ।

ওয়াসার পানির দাম বাড়ানোর সিদ্ধান্তকে চ্যালেঞ্জ করে দায়ের করা এক রিট আবেদনের শুনানি নিয়ে সোমবার (৫ অক্টোবর) হাইকোর্টের বিচারপতি জে বি এম হাসান ও বিচারপতি মো. খায়রুল আলমের সমন্বয়ে গঠিত বেঞ্চ এই রুল জারি করেন।

আরও পড়ুন:  লঞ্চে হত্যা করে লাশ নদীতে, আসামির জামিন আবেদন খারিজ

আদালতে আজ রিটের পক্ষে শুনানি করেন তানভীর আহমেদ। রাষ্টপক্ষে ছিলেন ডেপুর্টি অ্যার্টনি জেনারেল নূর উস সাদিক।

গত ১ এপ্রিল থেকে কার্যকর হওয়া ২৫ শতাংশ বাড়ানো ওই দামের ওপর নিষেধাজ্ঞা চেয়ে ভার্চুয়াল কোর্টে ১৫ জুন এ আবেদন করেন আইনজীবী মো. তানভীর আহমেদ।

তখন ভার্চুয়াল হাইকোর্ট পানির দাম বাড়ানোর ওপর নিষেধাজ্ঞা দিলেও আপিল বিভাগের চেম্বার আদালত তা স্থগিত করেন।

ওই রিট এখন তিনি নিয়মিত আদালতে উপস্থাপন করার পর আপিল বিভাগ এই রুল জারি করেন বলে জানান আইনজীবী তানভীর আহমেদ।

স্থানীয় সরকার বিভাগ থেকে গত ২৬ ফেব্রুয়ারি পানির দাম বাড়িয়ে একটি অফিস আদেশ জারি করা হয়। এতে বলা হয়, আবাসিকে ঢাকা ওয়াসার সরবরাহ করা প্রতি এক হাজার লিটার পানির দাম ১১ টাকা ৫৭ পয়সা থেকে বাড়িয়ে ১৪ টাকা ৪৬ পয়সা করা হয়েছে। এছাড়া বাণিজ্যিক সংযোগে প্রতি হাজার লিটার পানির দাম ৩৭ টাকা ৪ পয়সা থেকে বাড়িয়ে ৪০ টাকা করা হয়েছে।

আরও পড়ুন:  স্বাভাবিক হচ্ছে নিম্ন আদালতের বিচার কার্যক্রম

এর আগে গত ১৫ জুন ই-মেইলের মাধ্যমে জনস্বার্থে রিট আবেদনটি করেন আইনজীবী তানভীর আহমেদ।

রিট আবেদনে ওয়াসার পক্ষ থেকে সেবার মান না বাড়িয়ে পানির দাম বাড়ানোর সিদ্ধান্তকে চ্যালেঞ্জ করা হয়েছে। কোনো কারণ ছাড়াই পানির দাম বাড়ানোর সিদ্ধান্ত কেন অবৈধ হবে না, তা জানার নির্দেশনা চেয়ে রুলের আরজি জানানো হয়েছে রিটে। একই সঙ্গে, পানি সরবরাহ ও পয়োনিষ্কাশন আইনের ২২ নম্বর ধারার দুটি সেকশন চ্যালেঞ্জ করা হয়েছে।

বাংলা ম্যাগাজিন /এসপি

সাম্প্রতিক খবর আপনার মুঠোফোনে পেতে এখনি প্লে-স্টোর থেকে Bangla Magazine সার্চ করে ডাউনলোড করুন বাংলাদেশের নাম্বার ওয়ান নিউজ ম্যাগাজিন অ্যাপটি। অথবা ডাউনলোড করতে ক্লিক করুন এখানে। ভালো লাগলে অবশ্যই রেটিং দিয়ে উৎসাহী করুন।

  • 6
    Shares