প্রচ্ছদ খেলা ক্রিকেট

পাকিস্তানে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট : ভারত নিয়ে যা বললেন আফ্রিদি

১৬ বার দেখা হয়েছে
ভারত নিয়ে যা বললেন আফ্রিদি

বিশ্ব একাদশ পাকিস্তানে টি-২০ সিরিজ খেলতে যাওয়ায় খুশি হলেও, একটু আক্ষেপও রয়েছে ‘বুম বুম’ শহিদ আফ্রিদির। পাকিস্তানের সাবেক এই অধিনায়কের মতে, বিশ্ব একাদশে যদি ভারতের দু জন ক্রিকেটারও থাকতেন তাহলে ভালো হতো। খেলার মাধ্যমে যে গুরুতর সমস্যার সমাধান করা যায়, সেই বার্তা দেয়া যেত।

এর আগেও ভারতীয় ক্রিকেটারদের পাকিস্তানে খেলতে যাওয়ার আহ্বান জানিয়েছিলেন আফ্রিদি। অগাস্টে যখন বিশ্ব একাদশের পাকিস্তান সফরের কথা ঘোষণা করা হয়েছিল, তখন ট্যুইট করে ভারতীয় ক্রিকেটারদের পাকিস্তানে খেলতে যাওয়ার অনুরোধ করেছিলেন আফ্রিদি। কিন্তু ভারতীয় ক্রিকেটাররা বিশ্ব একাদশের সঙ্গে না যাওয়ায় আফশোস করছেন পাকিস্তানের সাবেক অধিনায়ক।

তবে ভারতীয় ক্রিকেটাররা না থাকলেও, বিশ্ব একাদশের পাকিস্তান সফর যে সেদেশে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট ফেরানোর পথে বড় পদক্ষেপ, সেটা মেনে নিয়েছেন আফ্রিদি।

লাহোরে মঙ্গলবার বিশ্ব একাদশের সঙ্গে সিরিজের প্রথম ম্যাচ খেলবে পাকিস্তান। এই ম্যাচ দেখার জন্য ইতিমধ্যেই লাহোরে পৌঁছে গিয়েছেন আফ্রিদি। তিনি পাকিস্তানের সাধারণ ক্রিকেটপ্রেমীদের মতোই বিশ্ব একাদশের এই সফর নিয়ে উচ্ছ্বসিত।

তিনি বলেছেন, ‘পাকিস্তানে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট ফেরানোর চেষ্টা সফল হয়েছে। পিসিবি চেয়ারম্যান নজম শেঠি সহ সব আধিকারিকদের কৃতিত্ব প্রাপ্য। আইসিসি-র কাছে আমাদের কৃতজ্ঞ থাকা উচিত। পাকিস্তানে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট ফেরা উচিত।’

নিরাপত্তার মোড়কে গাদ্দাফি স্টেডিয়াম:

পাকিস্তানে শ্রীলঙ্কার ক্রিকেটারদের বাসে হানার পর থেকে কোনো দেশই ক্রিকেট খেলতে যায় না। ভারতের সঙ্গে দ্বিপক্ষীয় সম্পর্কের জটিলতার জেরে বন্ধ হয়ে আছে ক্রিকেটের অন্যতম সেরা লড়াইও। অস্ট্রেলিয়া, ইংল্যান্ড, শ্রীলঙ্কা, বাংলাদেশ কেউই পা রাখেনি পাকিস্তানের মাটিতে।

শুধুমাত্র আফগানিস্তান, জিম্বাবুয়ে খেলতে যায় পাকিস্তানে। এই অবস্থায় পাকিস্তানের ক্রিকেট ফ্যানদের ক্রিকেটের আনন্দ দিতে বিশ্ব একাদশের ম্যাচ আয়োজনের ব্যবস্থা করেছে পিসিবি। ইতিমধ্যেই পাকিস্তান পৌঁছে গেছে বিশ্ব একাদশ দল। আল্লামা ইকবাল আন্তর্জাতিক বিমান বন্দরে নামার পর নজিরবিহীন নিরাপত্তায় মেন মল রোডের পাঁচতারা হোটেলে নিয়ে যাওয়া হয়েছে ক্রিকেটারদের।

দক্ষিণ আফ্রিকার ফাফ ডুপ্লেসি বিশ্ব একাদশের অধিনায়কত্ব করছেন। তাছাড়াও দলে রয়েছেন দক্ষিণ আফ্রিকার হাসিম আমলা, ইমরান তাহিরের মতো তারকারা। এছাড়াও আছেন অস্ট্রেলিয়ার জর্জ বেইলি, টিম পেইন, ইংল্যান্ডের পল কলিনউড, ক্যারিবিয়ান দ্বীপপুঞ্জের ড্যারেন স্যামি, স্যামুয়েল বদ্রীরা।

পাকিস্তান একাদশের বিরুদ্ধে তিনটি টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলবে বিশ্ব একাদশ। সেপ্টেম্বরের ১২, ১৩, ১৫ তারিখ খেলা হবে ম্যাগেুলো। আইসিসি-র ম্যাচ রেফারি রিচি রিচার্ডসন এই ম্যাচগুলো পরিচালনা করবেন। ১৪ জন ক্রিকেটারকে ১ লাখ ডলার করে দেয়া হবে। দিন মিলিয়ন ডলার খরচ করে এই ম্যাচ আয়োজন করছে পিসিবি।

জাইলস ক্লার্ক এই ম্যাচ করানোর জন্য বড় ভূমিকা নিয়েছেন। তিনি পাকিস্তান ঘুরে গিয়ে সুরক্ষা সংক্রান্ত রিপোর্ট দেয়ার পরই এই ম্যাচ আয়োজিত হচ্ছে। এদিকে বহু বছর পর পাকিস্তানে এরকম ক্রিকেট আয়োজন হচ্ছে। তাই পিসিবি সমস্ত সাবেক তারকাকে ম্যাচে থাকার জন্য আমন্ত্রণ জানিয়েছন।

তবে ইমরান খান জানিয়ে দিয়েছেন, এই ম্যাচের সময় তিনি হাজির হবেন না।

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন: